ইউএনও’র নাম ভাঙিয়ে টাকা নেওয়ার অভিযোগে মামলা

আপডেট: 10:15:12 11/07/2017



img

তালা (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধি : তালায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নাম ভাঙিয়ে বাজারের দুই ব্যবসায়ীর কাছ থেকে টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে।
মঙ্গলবার (১১ জুলাই) সন্ধ্যায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নিজেই বাদী হয়ে তালা থানায় মামলাটি করেন।
মামলায় তালা সদরের বাসিন্দা মৃত সৈয়দ সিরাজুল ইসলামের ছেলে সৈয়দ তরিকুল ইসলাম ও তালা বাজার বণিক সমিতির সভাপতি ও তালা রিপোটার্স ক্লাবের সভাপতি মীর জাকির হোসেনকে আসামি করা হয়েছে।
এর আগে তালা উপজেলা পরিষদের জায়গা দখল করে ঘর নির্মাণ করার সময় হারান সাধু নামে এক ব্যবসায়ীকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে এক মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ফরিদ হোসেন এ আদেশ দেন। সেই থেকে ঘর নির্মাণের কাজ বন্ধ ছিল। পরে আবার ঘর নির্মাণের কাজ শুরু করেন ওই ব্যবসায়ী। কিন্তু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঘর নির্মাণ কাজে বাধা দেন।
এবিষয়ে ব্যবসায়ী কুমারেশ ঘোষ বলেন, ‘উপজেলা পরিষদের জায়গা দাবি করে নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আমার মার্কেটের সব দোকান বন্ধ করে দেন। পরে সৈয়দ তরিকুল ইসলাম ও মীর জাকির হোসেনের কাছে আমরা চার লাখ ৩০ হাজার টাকা দিই। এরমধ্যে আমি দুই লাখ ৩০ হাজার ও হারান সাধু দুই লাখ টাকা দেন।’
এবিষয়ে মীর জাকির হোসেনের সঙ্গে ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘আজ বণিক সমিতির সভাপতি হিসেবে আমার করণীয় কাজ করতে যেয়ে ষড়যন্ত্রের শিকার হয়েছি।’
আর তরিকুল ইসলামের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তার নম্বর বন্ধ পাওয়া যায়।
তালা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ফরিদ হোসেন বলেন, ‘আমার নাম ভাঙিয়ে টাকা নেওয়ায় নিজে বাদী হয়ে তালা থানায় প্রতারণার অভিযোগে মামলা করেছি।’
তালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. হাসান হাফিজুর রহমান মামলা হওয়ার তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ‘আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।’

আরও পড়ুন