খালিশপুরে বাস-ট্রাক সংঘর্ষে ১৫ যাত্রী আহত

আপডেট: 08:09:58 04/02/2018



img

কোটচাঁদপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি : কোটচাঁদপুর ও মহেশপুরের খালিশপুরে রোববার পৃথক দুটি সড়ক দুর্ঘটনায় এক নারী নিহত এবং কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে চারজনকে কোটচাঁদপুর উপজেলা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এর মধ্যে একজনের অবস্থা আশংকাজনক।
আজ বিকেল তিনটার দিকে মহেশপুর উপজেলার খালিশপুর বাজারের কাছে যাত্রীবাহী বাস ও ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে কমপক্ষে ১৫ জন আহত হয়েছেন।
প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানান, কালীগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা মহেশপুরের বাঘাডাঙ্গাগামী একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে খালিশপুর গ্রামীণ ব্যাংকের সামনে একটি ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।
খবর পেয়ে কোটচাঁদপুর ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আহতদের উদ্ধার করে কোটচাঁদপুর উপজেলা হাসপাতালে আনেন। এদের মধ্যে চারজনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তারা হলেন মহেশপুরের নস্তি গ্রামের আত্তাফ হোসেন (৭০), যশোর সদর উপজেলার বসুন্দিয়ার সামিনা বেগম (৩০), মহেশপুরের গাড়াপোতা গ্রামের আলী কদর (৫০) এবং বাঘাডাঙ্গার বিল্লাল হোসেন (২৮)। বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দিয়েছেন ডাক্তার।
কোটচাঁদপুর হাসপাতালে দায়িত্বরত ডাক্তার ফারহানা শারমিন বলেন, ‘মাথায় আঘাত পাওয়া আত্তাফ হোসেনের  অবস্থা আশংকাজনক।’
মহেশপুর থানার ওসি লস্কর জায়াদুল হক বলেন, ‘দুর্ঘটনাস্থলে পুলিশ গেছে।’
এর আগে আলমসাধু থেকে পড়ে এক নারী নিহত হন।
কোটচাঁদপুর উপজেলার মামুনসিয়া গ্রামের ইউপি মেম্বর অহিদুল ইসলাম জানান, দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মামুনসিয়া বাজারের কাছে আলমসাধুর চাকায় শাড়ি পেঁচিয়ে রাস্তার ওপর পড়ে মিনুয়ারা বেগম (৬০) নামে এক নারী যাত্রী নিহত হয়েছেন। নিহত মিনুয়ারা বেগম উপজেলার আলুকদিয়া গ্রামের মৃত রেনু মিয়ার স্ত্রী। তিনি হরিন্দিয়া গ্রামে ভাইয়ের বাড়ি যাচ্ছিলেন।

আরও পড়ুন