খুলনায় কোচিং সেন্টারে তালা ঝুলিয়ে পালালেন শিক্ষকরা

আপডেট: 06:21:58 17/10/2016



খুলনা অফিস : খুলনায় কোচিং সেন্টারে তালা ঝুলিয়ে পালিয়ে যান শিক্ষকরা।
শিক্ষা মন্ত্রণালয় প্রণীত কোচিং বাণিজ্য বন্ধ নীতিমালার আলোকে কোচিংবিরোধী ঝটিকা অভিযান পরিচালনাকালে বেশ কিছু কোচিং সেন্টারে এ দৃশ্য দেখা যায়।
সোমবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মহানগরীর বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি স্কুল ও কোচিং সেন্টারে এ অভিযান পরিচালনা করে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর (মাউশি) খুলনা অঞ্চল।
নগরীর সরকারি মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়, সরকারি ইকবালনগর মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, রূপসা মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং সবুরুন্নেসা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, ফাতিমা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়সহ বেশ কয়েকটি স্কুল ও কোচিং সেন্টারে এ অভিযান চালানো হয়। এ সময় রূপসা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের এক শিক্ষককে কোচিং বাণিজ্যে সমৃক্ত থাকায় সর্তক করে দেওয়া হয়। তবে অভিযানের খবর ছড়িয়ে পড়লে নগরীর বিভিন্ন স্থানে গড়ে ওঠা কোচিং সেন্টারগুলোর পরিচালকরা প্রতিষ্ঠানে তালা দিয়ে সটকে পড়েন।
মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর খুলনা অঞ্চলের উপ-পরিচালক টি এম জাকির হোসেনের নেতৃত্বে মাউশির কর্মকর্তারা এ অভিযানে অংশ নেন।
অভিযানের বিষয়টি নিশ্চিত করে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর খুলনা অঞ্চলের পরিচালক টি এম জাকির হোসেন জানান, কোচিং বন্ধ নীতিমালা অনুযায়ী কোনো শিক্ষক নিজ স্কুলের ছাত্রছাত্রী পড়াতে পারবেন না। তারপরও অনেকে গোপনে নীতিমালা ভঙ্গ করছেন। তাদের বিরুদ্ধে মাউশির এধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।
এদিকে অভিযোগ রয়েছে, সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে নগরীর বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা বছরের পর বছর ধরে শিক্ষার্থীদের জিম্মি করে কোচিং বাণিজ্য চালিয়ে আসছেন। শিক্ষকদের গড়ে তোলা এসব কোচিং সেন্টারে শিক্ষার্থীদের না পড়ালে ক্লাসে ফেল করিয়ে দেওয়ার হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ অভিভাবকদের।

আরও পড়ুন