গরুর মাংসের ঝাল ঝাল ঝোল

আপডেট: 02:36:04 04/04/2018



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : আলু দিয়ে গরুর মাংসের ঝাল ঝাল ঝোল খেতে খুবই সুস্বাদু। একটু ব্যতিক্রমী স্বাদ পেতে চাইলে বিশেষ কিছু মসলা ব্যবহার করতে পারেন রান্নায়। 

উপকরণ
গরুর মাংস- দেড় কেজি (হাড়সহ)
তেল- আধা কাপ
আলু- ৭/৮ টুকরা
দারুচিনি- ২ টুকরা
তেজপাতা- ২টি
এলাচ- ৪/৫টি
লবঙ্গ- কয়েকটি
পেঁয়াজ কুচি- ১ কাপ
কাঁচামরিচ- কয়েকটি
মাংস মাখানোর উপকরণ
ধনে গুঁড়া- ১ টেবিল চামচ
জিরার গুঁড়া- ১ টেবিল চামচ
মরিচের গুঁড়া- ১ টেবিল চামচ
হলুদ গুঁড়া- ১ চা চামচ
রসুন বাটা- দেড় টেবিল চামচ
আদা বাটা- ২ টেবিল চামচ
পেঁয়াজ বাটা- আধা কাঁপ
লবণ- স্বাদ মতো
বিশেষ মসলা তৈরি উপকরণ
এলাচ- ৪টি
মৌরি- ১ টেবিল চামচ
আস্ত জিরা- ১ টেবিল চামচ
লবঙ্গ- ৪টি
রাঁধুনি- আধা চা চামচ

প্রস্তুত প্রণালি
গরুর মাংস ভালো করে ধুয়ে মাংস মাখানোর উপকরণ দিয়ে মেখে নিন। ৩০ মিনিট ম্যারিনেট করে রাখুন। এর মধ্যে বিশেষ মসলা তৈরি উপকরণ ভেজে একদম মিহি করে গুঁড়া করুন। মাংস রান্নার হাঁড়ি চুলায় দিয়ে তেজপাতা, দারুচিনি, লবঙ্গ, এলাচ, পেঁয়াজ কুচি ও কাঁচামরিচ একটি ফেড়ে দিয়ে দিন। পেঁয়াজ বাদামি হয়ে গেলে মেখে রাখা মাংস দিয়ে দিন। যে বাটিতে মাংস মেখে রেখেছিলেন সেই বাটিতে এক কাপ পানি দিয়ে ধুয়ে সেটাও দিয়ে দিন হাঁড়িতে। নেড়েচেড়ে চুলার জ্বাল বাড়িয়ে ১৫ মিনিট অপেক্ষা করুন। এর মধ্যে মাংস থেকেই পানি বের হবে। হাঁড়ি ঢেকে চুলার আঁচ কমিয়ে মাঝারি করুন। মাংস নব্বই ভাগ সেদ্ধ হয়ে গেলে ২ কাপ গরম পানি দিন। বলক চলে আসলে আলুর টুকরা দিয়ে দিন। গুঁড়া করে রাখা স্পেশাল মসলা দিয়ে নেড়েচেড়ে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিন হাঁড়ি। মাংস পুরোপুরি সেদ্ধ হয়ে গেলে কয়েকটি আস্ত কাঁচা মরিচ দিয়ে দিতে পারেন। একটু ঝোল থাকা অবস্থায়ই চুলা বন্ধ করে গরম চুলায় দমে রাখুন মাংস। এতে কাঁচামরিচের চমৎকার গন্ধ ছড়াবে, আবার তেলও ভেসে উঠবে। গরম ভাত কিংবা খিচুড়ির সঙ্গে পরিবেশন করুন মজাদার মাংসের ঝোল।
সূত্র : বাংলা ট্রিবিউন