দাফন করা হলো মুক্তামণিকে

আপডেট: 06:03:08 23/05/2018



img
img

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি : বিরল রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া সাতক্ষীরার শিশু মুক্তামণিকে দাফন করা হয়েছে।
বুধবার (২৩ মে) দুপুর আড়াইটার দিকে নামাজে জানাজা শেষে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার দক্ষিণ কামারবায়সা গ্রামে পারিবারিক কবরস্থানে দাদার কবরের পাশে তাকে দাফন করা হয়। এ সময় মুক্তামণির বাবা-মাসহ প্রতিবেশীদের আর্তনাদে ভারি হয়ে ওঠে পরিবেশ।
সাতক্ষীরা সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান বাবু, সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের আরএমও ডা. ফরহাদ জামিলসহ গ্রামবাসী তার জানাজায় অংশ নেন।
এর আগে মুক্তামণিকে শেষবারের মতো দেখতে আসেন সাতক্ষীরার পুলিশ সুপার সাজ্জাদুর রহমান, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক শাহ আব্দুল সাদী ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মেরিনা আক্তার।
আজ বুধবার সকালে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার কামারবায়সা গ্রামের নিজ বাড়িতে মারা যায় মুক্তামণি
গত কয়েকদিন ধরেই জ্বরে আক্রান্ত ছিল সে। তার অস্ত্রোপচার হওয়া হাতটি ফুলে দুর্গন্ধ বের হচ্ছিল। কথা বলতেও পারছিল না শিশুটি। ক্ষতস্থানে নতুন করে পচন ধরেছিল। আক্রান্ত ডান হাত থেকে বেরিয়ে আসছিল সাদা পোকা আর রক্ত।
মেয়ের মৃত্যুর পর এখন আর কিছুই চাওয়ার নেই উল্লেখ করে মুক্তামণির শোকার্ত বাবা ইব্রাহিম হোসেন বলেন, ওর জন্য দেশের প্রধানমন্ত্রী পর্যন্ত চেষ্টা করেছেন। এমন কোনো কিছু নেই যা সরকার করেনি। আমি সবার প্রতি কৃতজ্ঞ। এখন মুক্তামণির আত্মার মাগফিরাত কামনা ছাড়া আমার আর কিছুই চাওয়ার নেই।

আরও পড়ুন