নড়াইলে আজ শুরু বিজয়মেলা

আপডেট: 02:19:22 04/12/2018



img

নড়াইল প্রতিনিধি : অসাম্প্রদায়িক চেতনার সুরস্রষ্টা একুশে পদকপ্রাপ্ত চারণকবি বিজয় সরকারের ৩৩তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ ৪ ডিসেম্বর।
এ উপলক্ষে ৪ ও ৫ ডিসেম্বর নড়াইলে অনুষ্ঠিত হচ্ছে দুই দিনব্যাপী বিজয় সরকার মেলা। জেলা শিল্পকলা একাডেমী মাঠ প্রাঙ্গণে এ মেলা উদ্বোধন করবেন বিজয় সরকার ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও নড়াইলের জেলা প্রশাসক আঞ্জুমান আরা।
চারণকবি বিজয় সরকার ফাউন্ডেশনের আয়োজনে মঙ্গলবার থেকে শুরু হওয়া মেলায় বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মধ্যে রয়েছে কবির প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ, চিত্র প্রদর্শনী, বিজয়গীতি প্রতিযোগিতা, সেমিনার, কবিগানের আসর, বিজয়গীতি পরিবেশনা, ধুয়াগান ও বিজয় স্বর্ণ পদক প্রদান।
আয়োজক সূত্রে জানা গেছে, এবার বিজয় সরকার স্বর্ণ পদক পাচ্ছেন প্রখ্যাত কবিয়াল শ্যামল সরকার। মেলার শেষদিন ৫ ডিসেম্বর রাতভর কবিগানের আসর মাতাবেন এই কবিয়াল।
বিজয় সরকার তার জীবদ্দশায় প্রায় এক হাজার ৮০০ গান লিখেছেন এবং সুর করেছেন। তিনি গেয়েছেন : ‘এই পৃথিবী যেমন আছে/তেমনি ঠিক রবে/সুন্দর পৃথিবী ছেড়ে একদিন চলে যেতে হবে...।’ ‘নবী নামের নৌকা গড়/আল্লাহ নামের পাল খাটাও/বিসমিল্লাহ বলিয়া মোমিন/ কূলের তরী খুলে দাও...।’ কিংবা ‘আল্লাহ রসুল বল মোমিন/আল্লাহ রসুল বল/এবার দূরে ফেলে মায়ার বোঝা/সোজা পথে চল...।’ গেয়েছেন বিখ্যাত ও জনপ্রিয় গান ‘পোষা পাখি উড়ে যাবে সজনী/একদিন ভাবি নাই মনে/ সে আমারে ভুলবে কেমনে...।’
প্রখ্যাত এই লোককবির প্রকৃত নাম বিজয় অধিকারী হলেও সুর, সঙ্গীতে বিখ্যাত হওয়ায় ‘সরকার’ উপাধি লাভ করেন। বিজয় সরকারের বাবার নাম নবকৃষ্ণ অধিকারী ও মা হিমালয়া দেবী।
বার্ধ্যকজনিত কারণে ১৯৮৫ সালের ৪ ডিসেম্বর ভারতে মারা যান কবিয়াল বিজয় সরকার। পশ্চিমবঙ্গের কেউটিয়ায় তাকে সমাহিত করা হয়।
এই গুণী শিল্পী শিল্পকলায় অবদানের জন্য ২০১৩ সালে মরণোত্তর একুশে পদকে ভূষিত হন। ১৩০৯ বঙ্গাব্দের ৭ ফাল্গুন সদর উপজেলার বাঁশগ্রাম ইউনিয়নের ডুমদি গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।