পাগলী মা হয়েছে, বাবা হলো কে

আপডেট: 09:11:08 09/01/2019



img

নড়াইল প্রতিনিধি : নড়াইলের সীমান্তবর্তী শেখহাটি ইউনিয়নের হাতিয়াড়া এলাকার সীমা (২২) নামে এক তরুণী মা হয়েছে; স্থানীয়রা যাকে ‘পাগলী’ বলে জানে। কিন্তু ফুটফুটে এই মেয়ে সন্তানের বাবা কে, তা কেউ বলতে পারছেন না।
নবজাতককে নিয়ে নড়াইল সদর হাসপাতলে ভর্তি আছে ‘সীমা পাগলী’।
৯ জানুয়ারি দুপুরে নড়াইল সদর হাসপাতলে একটি মেয়েসন্তানের জন্ম দেয় সীমা। এর আগে সকালে এলাকার এক নারী সীমাকে নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করে চলে যান।
হাসপাতল সূত্রে জানা গেছে, সীমাকে ভর্তি করার সময় সে প্রসব যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছিল। চিকিৎসা শুরু করার কিছু সময় পর একটি মেয়েসন্তানের জন্ম দেয় সে। নবজাতক ও প্রসূতি সুস্থ আছে।
স্থানীয়রা জানান, মস্তিষ্ক বিকৃত হওয়ায় সীমার বিয়ে হয়নি। সেই কারণে তাদের প্রশ্ন, শিশুসন্তানটির জনক কে?
শেখহাটি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তাপসকুমার পাঠক জানান, সীমার মামাবাড়ি নড়াইলের সীমান্তবর্তী এলাকা শেখহাটি ইউনিয়নের হাতিয়াড়ায়। সীমা যখন ছোট, তখন তার মা ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। তখন থেকেই সীমা মামাবাড়িতে থাকতো। মানসিক রোগী সীমা মানুষের বাড়িতে বাড়িতে, রাস্তা ঘাটে, বাজারে এখানে সেখানে ঘুরে বেড়াতো এবং রাত কাটাতো। এলাকার মানুষ খাবার দিলে খেত।
পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিমউদ্দিন বলেন, ‘এক পাগলী নড়াইল সদর হাসপাতালে কন্যাসন্তানের জন্ম দিয়েছে- এমন খবর শুনে নবজাতক ও তার মাকে দেখতে হাসপাতালে গিয়েছিলাম। রক্তের দরকার ছিল। এক পুলিশ সদস্য এক ব্যাগ রক্তও দিয়েছে।’
এই নবজাতকের বাবা কে, তা এখনো জানা যায়নি। বিষয়টি পুলিশ তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবে, বললেন এসপি।

আরও পড়ুন