বৈশাখি ভাতা তুলতে পারলেন না শিক্ষকরা

আপডেট: 06:49:11 11/04/2019



img

মৌসুমী নিলু, নড়াইল : বৈশাখের আগে বৈশাখি ভাতা তুলতে পারলেন না নড়াইলের এমপিওভুক্ত শিক্ষক-কর্মচারীরা। এ ছাড়া প্রতি মাসের বেতন-ভাতা তুলতেও ভোগান্তির অভিযোগ করছেন তারা।
এবারই প্রথমবারের মতো বৈশাখিভাতা দেওয়া হচ্ছে এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের। এতে শিক্ষকরা সন্তোষ প্রকাশ করে সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন। তবে পদ্ধতিগত জটিলতা তাদের ভোগাচ্ছে।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গত ৯ এপ্রিল বেসরকারি স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের বৈশাখি ভাতা/১৪২৬ বঙ্গাব্দের সরকারি অংশের আটটি চেক রাষ্ট্রায়ত্ত চারটি ব্যাংকে হস্তান্তর করা হয়। শিক্ষক-কর্মচারীরা আজ ১১ এপ্রিল পর্যন্ত ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট শাখা থেকে ভাতা উত্তোলন করতে পারবেন বলে জানানো হয়।
নড়াইল সদর উপজেলার এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের প্রতি মাসের সরকারি অংশের বেতন-ভাতা রূপালী ব্যাংকের শাখার মাধ্যমে উত্তোলন করা হয়।
সদর উপজেলায় বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা অভিযোগ করেন, রূপালী ব্যাংকের নড়াইল শাখায় বৈশাখি ভাতা উত্তোলনের শেষ দিনে (১১ এপ্রিল) বিল জমা দিতে পারেননি তারা। ভাতার বিল জমা দিতে দুপুর ১২টা পর্যন্ত বসিয়ে রাখে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। পরে আগামী ১৫ এপ্রিল (২ বৈশাখ) ভাতার বিল জমা নেওয়া হবে বলে শিক্ষক-কর্মচারীদের চলে যেতে বলা হয়।
পয়লা বৈশাখের আগে বৈশাখি ভাতা তুলতে না পেরে ক্ষোভ প্রকাশ করেন শিক্ষক-কর্মচারীরা ।
এদিকে, শিক্ষকদের অভিযোগ, নড়াইলের এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের প্রতি মাসের সরকারি অংশের বেতন-ভাতা তুলতে ভোগান্তির যেন শেষ নেই। এ বিষয়ে অভিযোগ করলে নানা অজুহাতে হয়রানি আরো বেড়ে যায়। এমনকি বিল জমা নিতেও গড়িমসি করেন ব্যাংক কর্মকর্তারা। এ কারণে অনেকেই ভোগান্তিকে নিয়তি বলেই মেনে নিয়েছেন।
হয়রানির ভয়ে নাম প্রকাশ না করার অনুরোধ জানিয়ে শিক্ষকরা ব্যাংক কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে নানা প্রকার অভিযোগ করে বলেন, শিক্ষকরা ব্যাংকে টাকা তুলতে গেলে সিরিয়াল লাগে, লাইন ধরে দাঁড়াতে হয়। কিন্তু অনান্য গ্রাহকদের সিরিয়াল লাগে না। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে সিরিয়াল ছাড়াই টাকা দেওয়া হয়। এতে শিক্ষকরা অপমানিত বোধ করেন।
শিক্ষক-কর্মচারীদের সরকারি অংশের বেতন-ভাতার চেক রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকে হস্তান্তর করে ৭-৮ দিনের মধ্যে সংশ্লিষ্ট ব্যাংকের শাখা থেকে বেতন উত্তোলন করতে বলা হয়। কিন্ত রূপালী ব্যাংকের নড়াইল শাখা বেতন উত্তোলনের শেষ দিনে বেতন ভাতার বিল জমা নেয়। উত্তোলনের তারিখ দেয় আরো পরে।
এসব বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে রূপালী ব্যাংকের নড়াইল শাখার ব্যবস্থাপক এস এম ওয়াহিদুজ্জামান বলেন, ‘শিক্ষকদের বৈশাখি ভাতার অর্ডার শিট (হার্ড কপি) এখনো হাতে পাইনি। আজ বৈশাখি ভাতা জমা দেওয়ার শেষ দিন হলেও আগামী ১৫ এপ্রিল (২ বৈশাখ) বৈশাখি ভাতার বিল জমা নেওয়া হবে। কোনো সমস্যা হবে না।’
ব্যাংকে টাকা তুলতে সিরিয়ালের ব্রেকের বিষয় অস্বীকার করে ব্যবস্থাপক বলেন, শিক্ষকরা মাসে ১-২ দিন আসেন টাকা তুলতে। নিয়মিত গ্রাহকরা হয়তো কোনোভাবে আগে চলে যেতে পারেন।

আরও পড়ুন