মণিরামপুরে ইউপি সদস্য আক্রান্ত

আপডেট: 11:31:37 10/09/2018



img

মণিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি : মণিরামপুরে আব্দুল মান্নান (৪০) নামে বিএনপি নেতা এক ইউপি সদস্যকে দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে জখম করেছে।
রোববার রাত ১২টার দিকে উপজেলার জয়পুর গ্রামের উত্তরাইল মোড়ে একটি চায়ের দোকানের সামনে এঘটনা ঘটে। পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে উদ্ধারের পর প্রথমে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাতেই তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়।
আবদুল মান্নান জয়পুর গ্রামের বিশ্বাসপাড়ার মৃত সাহেব আলীর ছেলে। তিনি ঢাকুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের নয় নম্বর ওয়ার্ড সদস্য এবং ইউনিয়ন বিএনপির স্থানীয় সরকার ও পল্লী উন্নয়ন বিষয়ক সম্পাদকের দায়িত্বে রয়েছেন।
এই ঘটনায় সোমবার বিকেলে আব্দুল মান্নানের ভাই নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে থানায় মামলা করেছেন। পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িত অভিযোগে আজিবর রহমান (৪২) নামের একজনকে আটক করেছে। তিনি জয়পুর গ্রামের তবিবুর রহমানের ছেলে।
সোমবার বিকেলে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে আবদুল মান্নানের স্ত্রী ফিরোজা বেগম মোবাইল ফোনে সাংবাদিকদের জানান, রোববার রাত সাড়ে নয়টার দিকে তার স্বামী বাড়ি থেকে বের হয়ে উত্তরাইল মোড়ে হেলালের চায়ের দোকানে যান। সেখানে তিনি বেঞ্চে বসে এলাকার লোকজনের সঙ্গে কথা বলছিলেন। রাত সাড়ে ১১টার দিকে মুখোশধারী চার-পাঁচজন সন্ত্রাসী এসে তার ওপর অতর্কিতে হামলা চালায়। দুর্বৃত্তরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাথা, গলা, পাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে উপর্যুপরি কুপিয়ে তাকে জখম করে। পরে দুর্বৃত্তরা মান্নানের মৃত্যু নিশ্চিত ভেবে তাকে রাস্তার পাশে ফেলে রেখে চলে যায়।
মণিরামপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি অ্যাডভোকেট শহীদ ইকবাল হোসেন এই বর্বরোচিত হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন।
মণিরামপুর থানার ওসি মোকাররম হোসেন বলেন, এই ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। আজিবর নামের একজন আটক আছে।

আরও পড়ুন