মণিরামপুর অভয়নগরে যবিপ্রবির ত্রাণ বিতরণ

আপডেট: 07:09:23 27/08/2017



img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোরের মণিরামপুর ও অভয়নগরের চারটি ইউনিয়নের সাতটি গ্রামের বন্যাকবলিত সাড়ে চারশ পরিবারের মধ্যে ত্রাণ বিতরণ করেছে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যবিপ্রবি)।
আজ রোববার দুপুরে মণিরামপুর ও অভয়নগর এলাকায় ত্রাণ বিতরণ করেন যবিপ্রবির দুটি দল। মণিরামপুরের দুটি ইউনিয়নে ত্রাণ দেন যবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ার হোসেন।
খানপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ ভরতপুরে ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. মো আনোয়ার হোসেন বলেন, ‘আপনাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য এখানে এসেছি। দীর্ঘদিন ধরে জানি, এটা স্থায়ী জলবদ্ধতা। আমরা যখন সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ে কথা বলবো, তখন আপনাদের এই দুর্ভোগের বিষয়টি তুলে ধরবো।’
দুর্যোগের সময় মানুষের সাহায্যে এগিয়ে আসায় যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়কে ধন্যবাদ জানান খানপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান গাজী মোহাম্মদ আলী।
এরপর যবিপ্রবির উপাচার্য ত্রাণ বিতরণ করতে যান দুর্বাডাঙ্গা ইউনিয়নের কামিনীডাঙ্গা, কুশখালী ও আসাননগর গ্রামে।
এ সময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন যবিপ্রবির পরিবেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিভাগের চেয়ারম্যান ড. সাইবুর রহমান মোল্লা, মৎস্য ও মেরিন বায়ো-সায়েন্স বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক সুব্রত ম-ল, অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক প্রভাষচন্দ্র রায়, পেট্রোলিয়াম অ্যান্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রভাষক শাহিন শাহ্, দুর্বাডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সরদার বাহাদুর আলী প্রমুখ।  
অন্যদিকে অভয়নগর এলাকার চলিশিয়া ইউনিয়নের আন্ধা ও ডুমুরতলা গ্রাম ত্রাণ বিতরণ করেন যবিপ্রবির কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক শেখ আবুল হোসেন। পরে মণিরামপুরের কুলটিয়া ইউনিয়নেও ত্রাণ বিতরণ করেন তিনি।
এ সময় অধ্যাপক শেখ আবুল হোসেনের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন পেট্রোলিয়াম অ্যান্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মোহাম্মদ তোফায়েল আহমেদ, পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) পরিতোষকুমার বিশ্বাস, প্রধান চিকিৎসা কর্মকর্তা দীপককুমার ম-ল, কর্মকর্তা সমিতির সাধারণ সম্পাদক হেলালুল ইসলাম প্রমুখ।
যবিপ্রবির জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আব্দুর রশিদের পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

আরও পড়ুন