মহেশপুরে ‘বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত’ নিহত

আপডেট: 03:13:13 12/07/2018



img

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি : ঝিনাইদহের মহেশপুরে পুলিশের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নুরু (৪৫) নামের একজন নিহত হয়েছেন; পুলিশ যাকে ডাকাত দলের সদস্য বলে দাবি করছে।
ঘটনার সময় আগ্নেয়াস্ত্র, গুলি ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়েছে বলেও জানায় পুলিশ। বৃহস্পতিবার দিনগত রাত তিনটার দিকে এ উপজেলার পুরন্দপুর এলাকায় এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে।
ঝিনাইদহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কোটচাদপুর সার্কেল) মির্জা সালাউদ্দিন জানান, মহেশপুর থানার পুলিশ কালীগঞ্জ-জীবননগর সড়কে টহল দিচ্ছিল। এসময় মহেশপুরের পুরন্দপুর এলাকায় ডাকাতরা রাস্তায় গাছ ফেলে ডাকাতি করছে বলে খবর পেয়ে সেখানে পৌঁছায় পুলিশ। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাতরা গুলি ছোড়ে। পুলিশও পাল্টা জবাব দেয়। বন্দুকযুদ্ধের এক পর্যায়ে ডাকাতরা পালিয়ে যায়। এসময় ঘটনাস্থল থেকে নুরু নামের এক ডাকাতকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে আনলে ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে গুলিসহ একটি বন্দুক, করাত, হাসুয়া ও ডাকাতির সরঞ্জাম উদ্ধার করে।
তিনি আরো জানান, নিহত নুরু এলাকার একজন ডাকাত দলের সদস্য হিসেবে পরিচিত। তার বাড়ি ওই এলাকাতেই।
এরআগে শনিবার দিনগত রাত রাত দুইটার দিকে ঝিনাইদহ শহরের পবহাটি এলাকায় র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুইজন নিহত হয়েছিলেন। নিহতরা মাদক ব্যবসায়ী বলে দাবি করেছিল র‌্যাব।

আরও পড়ুন