লোহাগড়ায় বিনামূল্যের বই কালোবাজারে, জব্দ

আপডেট: 02:18:41 14/01/2018



img

লোহাগড়া (নড়াইল) প্রতিনিধি : লোহাগড়ায় মাধ্যমিক পর্যায়ের বিভিন্ন শ্রেণির বিপুল সংখ্যক সরকারি বই কালোবাজারে বিক্রির সময় এলাকাবাসী আটক করেছে।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার শালনগর মডার্ন অ্যাকাডেমির ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক কাজী মহিউদ্দীন বিদ্যালয় থেকে জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড অনুমোদিত সপ্তম, অষ্টম, নবম এবং দশম শ্রেণির ২০১৮ ও ২০১৭ সালের ৩২০ কেজি বই শিক্ষার্থীদের মাঝে বিতরণ না করে কেজি দরে কালোবাজারে বিক্রি করে দিয়েছেন।
গত শনিবার দুপুরে বিদ্যালয় থেকে এ বই বিক্রি করা হয় উপজেলার লাহুড়িয়া বাজারের ভাঙড়ি (পুরনো মালামাল ক্রেতা) ব্যবসায়ী ইকরামুল বিশ্বাস ও লাল চাঁদের কাছে। ওই ব্যবসায়ীরা কেনা বই বিদ্যালয় থেকে গত শনিবার রাত নয়টার দিকে নছিমনযোগে লাহুড়িয়া বাজারে নিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় এলাকাবাসী মণ্ডলবাগ এলাকা থেকে ওই বই আটক করে পুলিশে খবর দেন। লাহুড়িয়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই শফিকুল ইসলাম বই জব্দ করে শালনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান খান তসলুর রহমানের জিম্মায় রেখে দেন।
ভাঙড়ি ব্যবসায়ী লালচাঁদ বলেন, ‘শালনগর মডার্ন অ্যাকাডেমির মহিউদ্দীন স্যারের কাছ থেকে ৫০০ কেজি পুরনো-নতুন বই, খাতাপত্র ও রড-টিন কিনেছি। সন্ধ্যার সময় নৈশপ্রহরীর কাছে সাত হাজার টাকা জমা দিয়ে মালামাল নছিমনে করে নিয়ে যাওয়ার সময় এলাকাবাসী ঘেরাও করে পুলিশে খবর দেয়।’
এ ব্যাপারে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক কাজী মহিউদ্দীন বলেন, ‘বিদ্যারয় থেকে কিছু পুরনো বই-খাতা বিক্রি করা হয়েছে। তার মধ্যে ২০১৮ সালের বই কীভাবে এলো, তা আমার জানা নেই।’
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকতা শহিদুল ইসলাম রোববার সাংবাদিকদের বলেন, ‘সরকারি বই বাজারে বিক্রি করা যাবে না। এ ব্যাপারে ফোন পেয়েছি তবে লিখিতভাবে কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’
লাহুড়িয়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই শফিকুল ইসলাম বই জব্দের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন