শার্শার মানুষের ভালোবাসার ‘প্রতিদান’ দিলেন সাইফুল

আপডেট: 03:29:00 11/06/2018



img

স্টাফ রিপোর্টার : সাইফুল ইসলাম পেশায় ‘বাংলাদেশ ইউনানি গ্রিন ফার্মাসিউটিক্যালস’ নামে একটি ওষুধ কোম্পানির মার্কেটিং সেলসম্যান। দীর্ঘ দশ বছর ধরে যশোরের শার্শা উপজেলার নাভারন বাজারে ব্যাচেলর হিসেবে ঘরভাড়া করে থাকতেন। সুদূর কুড়িগ্রাম থেকে আসা এই ব্যক্তি সুন্দর ব্যবহার দিয়ে স্থানীয়দের মন জয় করেছিলেন। কিন্তু কাউকে না জানিয়ে উপজেলার বিভিন্ন ব্যবসায়ী ও সাধারণ মানুষের নগদ অর্থ এবং মালামাল নিয়ে পালিয়ে গেছেন এই ব্যক্তি। তার বাড়ি কুড়িগ্রাম জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলে।
গত এক সপ্তাহ ধরে সাইফুল উধাও। এখন বেরিয়ে আসছে তার নানা অপকর্ম। স্থানীয়রা তাকে ‘প্রতারক’ হিসেবে আখ্যা দিচ্ছেন। নিখোঁজ সাইফুল ইসলামের বিস্তর খোঁজ খবর নিয়েও এলাকাবাসী তার হদিস মেলাতে পারেননি। গ্রিন ফার্মাসিউটিক্যালসের লোকজনও খুঁজতে খুঁজতে নাভারন বাজারে তার ভাড়া বাসায় চলে আসেন। কিন্তু সাইফুল ইসলামের কোনো খোঁজ খবর না পেয়ে তারাও বিপাকে।
কোম্পানির কর্মকর্তারা বলছেন, সাইফুল তাদের ওষুধ মার্কেটে দেওয়ার পর কৌশলে আনুমানিক চার লাখ টাকা উঠিয়ে নিয়ে উধাও হয়ে গেছেন। এছাড়া নাভারন বাজারের ব্যবসায়ী মিলন, কনক, তোতা, সবুজ, সোহাগ, আলামিনসহ অসংখ্য মানুষের কাছ থেকে নগদ টাকাসহ বিভিন্ন মালামাল নিয়ে রাতের আঁধারে পালিয়ে গেছেন তিনি।
অবাক করার মতো তথ্য হলো, সবাই সাইফুলের বাড়ি কুড়িগ্রাম বলে জানেন। কিন্তু তার প্রকৃত ঠিকানা কেউ জানেন না।

আরও পড়ুন