‘ঐতিহ্যের কারণেই আর্জেন্টিনা ফেভারিট’

আপডেট: 01:45:02 05/06/2018



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : বিশ্বচ্যাম্পিয়নের খাতায় মাত্র দুবার নাম লেখাতে পেরেছে আর্জেন্টিনা। ব্রাজিলের পাঁচটি, চারবার করে শিরোপা উঁচিয়ে ধরা জার্মানি কিংবা ইতালি টুর্নামেন্টে থাকার পরও প্রায় প্রতিবারই নীল-আকাশি শিবিরকেও রাখা হয় সম্ভাব্য বিশ্বজয়ীর তালিকায়। কিন্তু কেনো এই দলটিকে ফেভারিট ধরেই প্রতিবার মাঠে গড়ায়?
দেশের প্রখ্যাত কোচ ও ফুটবল বিশ্লেষক জুলফিকার মাহমুদ মিন্টুর মতে আর্জেন্টিনার সম্ভাবনাটা দেখার সবচেয়ে বড় কারণ তাদের ফুটবলীয় ঐতিহ্যটাই, ‘আসলে শুধু এই বিশ্বকাপেই নয়। যতবার বিশ্বকাপ মাঠে গড়াবে এবং আর্জেন্টিনা চূড়ান্ত পর্বে খেলবে, ততবারই দলটি ফেভারিট হয়েই বিশ্বকাপ শুরু করবে। আর্জেন্টিনার ফুটবলীয় ঐতিহ্যের কারণেই এমনটা হয়ে থাকে।’
আসছে বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা দলের শক্তিমত্তা সম্পর্কে সবার মতো মিন্টুও বললেন তাদের বারুদে ভরা আক্রমণভাগ ও মধ্যমাঠের কথাই, ‘বিশ্বমানের সব ফুটবলার রয়েছেন আর্জেন্টিনার আক্রমণভাগ ও মাঝমাঠে। সার্জিও অ্যাগুয়েরো, গঞ্জালো হিগুয়েন, লিওনেল মেসি কিংবা বর্তমান সেনশন পাওলো দিবালার সঙ্গে মিডফিল্ডে থাকবেন এভার বানেগা, লুকাস বিগলিয়া ও হাভিয়ের মাশ্চেরানো। তাই ফরোয়ার্ড ও মিল্ডফিডাররাই দলটির আসছে বিশ্বকাপের শক্তির জায়গা।’
তবে বিশ্বকাপে দারুণ কিছু করার ক্ষেত্রে দলটির সামনে চ্যালেঞ্জ হয়ে আসতে পারে তাদের রক্ষণভাগ। চট্টগ্রাম আবাহনীর কোচের দায়িত্বে থাকা মিন্টুর ভাষ্যে, ‘রাশিয়া বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার দুর্বলতার জায়গাটা তাদের নড়বড়ে ডিফেন্স। নিকোলাস ওটামেন্ডি তাদের রক্ষণভাগে মূল ভূমিকা পালন করবেন। শেষ মুহূর্তে সার্জিও রোমেরোর দল থেকে ছিটকে পড়াটা অবশ্যই আর্জেন্টিনার জন্য বড় ধাক্কা।’
সূত্র : এনটিভি