‘সংস্কৃতিচেতনা ছাড়া চিন্তার বিকাশ সম্ভব নয়’

আপডেট: 09:12:11 04/05/2019



img

স্টাফ রিপোর্টার : বৃষ্টি ও দমকা হাওয়া বাধা হতে পারেনি যশোরের গুণী মানুষদের কাছে। শনিবার ‘ফণীর কারণে সারাদিন যে প্রকৃতি চোখ রাঙিয়েছিল, তা উপেক্ষা করে প্রেসক্লাবে যশোরে হাজির হয়েছিলেন সংস্কৃতিপ্রিয় মানুষেরা। ক্লাবের দোতলার হলরুমে ‘অদৃশ্য ময়দানের লড়াই’গ্রন্থ নিয়ে এদিন বিকেলে জমে উঠেছিল প্রাণবন্ত আলোচনা।
রবীন্দ্রসংগীত পরিবেশনের মধ্যদিয়ে শুরু হয় অনুষ্ঠানটি। সুরধুনীর শিল্পীরা এ সংগীত পরিবেশন করেন।
মফিজুর রহমান রুননু রচিত এ প্রবন্ধ গ্রন্থের আলোচনা অনুষ্ঠানের মধ্যমণি ছিলেন বিশিষ্ট গবেষক ও প্রাবন্ধিক নূর মোহাম্মদ। তিনি তার আলোচনায় বলেন, সংস্কৃতিচেতনা ছাড়া মানুষের চিন্তার বিকাশ সম্ভব নয়। সংস্কৃতিচেতনা বিকশিত হলে সমাজ অগ্রসর হয়।
লেখক পাভেল চৌধুরীর সভাপতিত্বে অন্যদের মধ্যে আলোচনা করেন বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক আমজাদ হোসেন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলাসাহিত্যের অধ্যাপক গাজী মাহবুব মুর্শিদ, প্রকাশনা সংস্থা কথা প্রকাশের স্বত্বাধিকারী জসিম উদ্দীন, রাজনীতিক আমিনুল কামাল রুমি, কবি ও সাংবাদিক মহিউদ্দীন মোহাম্মদ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালন করেন শামীমা ইয়াসমিন শম্পা।
লেখক তার অনুভূতি ব্যক্ত করে অনুষ্ঠানে কথা বলেন। তিনি পাঠক, অনুষ্ঠানে হাজির সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।
বক্তারা গ্রন্থটির ভুয়সী প্রশংসা করে বলেন, লেখক সমাজমনস্ক দৃষ্টিতে সংস্কৃতিকে দেখার চেষ্টা করেছেন। মানুষের বেঁচে থাকার সংগ্রামের ভিতর মনোজগতে সমাজ পরিবর্তনের আকাঙ্ক্ষা জাগ্রত করার ক্ষেত্রে সংস্কৃতির ভূমিকা যে অনবদ্য, সে কথাটি এ বইয়ে ব্যক্ত হয়েছে।