বেদনাবিধুর পরিবেশে করপোরাল আক্তারকে দাফন

আপডেট: 06:42:54 16/03/2018



img
img

মাগুরা প্রতিনিধি : জাতিসংঘের শান্তিরক্ষা মিশনে মালিতে গিয়ে নিহত বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ল্যান্স করপোরাল আক্তার হোসেনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে জুমার পর তার নিজ গ্রাম শ্রীপুর উপজেলার বরালিদহ গ্রামের কবরস্থানে তাকে দাফন করা হয়।
আক্তার হোসেনের বাবা তালিম মোল্লা জানান, শুক্রবার দুপুর ১২টায় মরদেহ নিয়ে সেনাবাহিনীর একটি হেলিকপ্টার মাগুরা স্টেডিয়ামে নামে। এ সময় লে. তানভীর আহম্মেদ রানার নেতৃত্বে যশোর সেনানিবাসের ২৩ রেজিমেন্টের একটি সেনাদল ল্যান্স করপোরাল আক্তারের মরদেহ তার গ্রামের বাড়ি শ্রীপুর উপজেলার বরালিদাহ নিয়ে যায়।
আক্তার হোসেনের লাশ তার বাড়িতে পৌঁছালে পরিবারের সদস্যদরা কান্নায় ভেঙে পড়েন। এ সময় এক হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়। মা, স্ত্রী, কন্যা কাঁদতে কাঁদতে বার বার জ্ঞান হারান। অন্যদিকে পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম সদস্যের অকাল মৃত্যুতে নির্বাক তার বাবা তালিম মোল্লা।
পরে বাদ জুমা বাড়ির পাশে মসজিদ মাঠে নামাজে জানাজা শেষে বরালিদাহ কবরস্থানে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন করা হয় আক্তারকে।
গত ২৮ ফেব্রুয়ারি জাতিসংঘের শান্তিরক্ষী মিশনে পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মালিতে মাইন বিস্ফোরণে আকতার হোসেনসহ বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর চার সদস্য নিহত হন।
নিহত আক্তার ২১ বছর আগে সেনাবাহিনীতে যোগ দেন। তিনি শ্রীপুর উপজেলার বরালিদহ গ্রামের তালিম মোল্লার ছেলে। তার পরিবারে বাবা-মা, স্ত্রী, ও দুই মেয়েসন্তান রয়েছে।

আরও পড়ুন