মণিরামপুরে তরুণী বধূর আত্মহত্যা

আপডেট: 02:17:24 19/11/2017



img
img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোরে রানি দাস (২২) নামে এক গৃহবধূ কীটনাশক পানে আত্মহত্যা করেছেন।
রোববার সকালে মণিরামপুর উপজেলার খেদাপাড়া গ্রামে বিষপানের পর যশোর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। তিনি খেদাপাড়া গ্রামের প্রদীপ দাসের স্ত্রী এবং যশোর সদর উপজোলার দাইতলা গ্রামের শ্রীকান্ত দাসের মেয়ে। স্বামীর পরকীয়ার কারণে তিনি আত্মহত্যা করেন বলে অভিযোগ করা হচ্ছে।
বোন অঞ্জনা দাস সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘৮-৯ বছর আগে রানি দাসের সঙ্গে প্রদীপ দাসের বিয়ে হয়। বিয়ে পরে তাদের দুটি মেয়েসন্তান আছে। বেশ কিছু দিন হলো প্রদীপের সাথে খেদাপাড়া গ্রামের এক নারীর পরকীয়া সম্পর্ক গড়ে ওঠে। রানি এঘটনা জেনে ফেলায় প্রদীপ নিয়মিত তাকে মারপিট করতো। রোববার ভোরে প্রদীপ তাকে আবার মারপিট করে। এরপর রানি কীটনাশক পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। পরিবারের লোকজন রানিকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। বেলা পৌনে ১২টার দিকে সে মারা যায়।’
হাসপাতালের মহিলা মেডিসিন ওয়ার্ডের ইন্টার্ন ডাক্তার সাফাত সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘অতিরিক্ত কীটনাশক পান করায় ওই গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে।’

আরও পড়ুন