মণিরামপুরে এক সন্তানের জননীর ঝুলন্ত লাশ

আপডেট: 06:44:48 16/09/2018



img

মণিরামপুর (যশোর) প্রতিনিধি : মণিরামপুরে তহমিনা খাতুন (২৮) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার হয়েছে।
শনিবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে স্বজনরা বাড়ির গোয়ালঘর থেকে লাশটি উদ্ধার করেন।
তহমিনা উপজেলার চাকলা গ্রামের ভাংড়ি ব্যবসায়ী সাহিদুর রহমান গাজীর স্ত্রী। ওই দম্পতির চতুর্থ শ্রেণিপড়ুয়া তাজিম হোসেন (৯) নামে একটি ছেলেসন্তান রয়েছে।
স্বজনরা জানান, তহমিনা বাড়িতে টারকি (মুরগির মতো পাখিবিশেষ) চাষ করতেন। শনিবার রাতে স্বামী সাইদুর তাকে টারকিগুলো বিক্রি করে দেওয়ার কথা বললে দুইজনের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে স্বামীর ওপর অভিমান করে রাত ১১টার দিকে সবার অজান্তে গোয়ালঘরের আড়ার সঙ্গে ওড়না জড়িয়ে তিনি আত্মহত্যা করেন। রাতে স্ত্রীকে ঘরে না পেয়ে তাকে খুঁজতে বের হন সাহিদুর। পরে গোয়ালঘরে গিয়ে তহমিনাকে ঝুলতে দেখে চিৎকার দেন। সাইদুরের চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে লাশ নামান।
এই ঘটনায় গৃহবধূর বাবা আব্দুস সামাদ বাদী হয়ে রোববার সকালে মণিরামপুর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা করেছেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে নাশ দাফনের অনুমতি দেয়।
মণিরামপুর থানার ওসি মোকাররম হোসেন বলেন, ‘এই ঘটনায় থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। লাশ স্বজনদের দিয়ে দেওয়া হয়েছে।’

আরও পড়ুন