আফ্রিকান ও মুসলিমদের বিশ্বকাপ জয়!

আপডেট: 01:42:30 17/07/2018



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : বিশ্বকাপজয়ী ফ্রান্সের এ দলটিকে নিয়ে আসর শুরুর আগেও পশ্চিমা গণমাধ্যম লিখেছে। ২৩ জনের দলটির ১৫ জনই যে অভিবাসী। কে জানত এই অভিবাসীরাই জিতে নেবে বিশ্বকাপ!
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লেখক খালেদ বেদাউন টুইটারে ফ্রান্সের উদ্দেশে একটি মন্তব্য করেন। রোববার ফাইনাল শেষ হওয়ার পরই মন্তব্যটি করেন তিনি। ওই টুইটটি ‘রিটুইট’ হয়েছে এক লাখ ৬৩ হাজারেরও বেশিবার। ওই মন্তব্যে ‘লাইক’ পড়েছে তিন লাখ ৭০ হাজারেরও বেশি।
কী লিখেছেন খালেদ বেদাউন?
তিনি লেখেন, ‘প্রিয় ফ্রান্স, বিশ্বকাপ জেতায় অভিনন্দন। তোমার দলের ৮০ শতাংশ আফ্রিকান। ফেলে দাও বর্ণবৈষম্য এবং অভিবাসীবিদ্বেষ।
তোমার দলের ৫০ শতাংশই মুসলিম। ফেলে দাও ইসলামবিদ্বেষ।
আফ্রিকান ও মুসলিমরা তোমাকে দ্বিতীয় বিশ্বকাপ দিয়েছে, এখন তুমি তাদের ন্যায়বিচার দাও।’
প্রতিবেদনে বলা হয়, ফ্রান্সের বিশ্বকাপজয়ী দলটির অভিবাসীরা দেশটির সাবেক উপনিবেশভুক্ত দেশগুলো থেকেই এসেছেন।
তবে খালেদের ওই মন্তব্যের সমালোচনাও করছেন অনেকে। অনেকে বলছেন, খালেদ ফুটবল আর রাজনীতিকে এক করে ফেলেছেন। অনেকে মনে করছেন, সাম্প্রতিক অভিবাসী বিতর্ক ও সন্ত্রাসী হামলার পরিপ্রেক্ষিতে খালেদের টুইটটি আরো বিতর্কিত।
ফ্রান্সের বিশ্বকাপজয়ী দলটিতে পগবা, এমবাপ্পে, কান্তেসহ গুরুত্বপূর্ণ ফুটবলাররা আফ্রিকান বংশোদ্ভূত।
ফ্রান্স দ্বিতীয়বারের মতো বিশ্বকাপ জয় করল। এর আগে ১৯৯৮ সালের বিশ্বকাপ জয় করে ফ্রান্স। ওই বিশ্বকাপে দলটির মূলনায়ক ছিলেন জিনেদিন জিদান। তিনি আলজেরিয়ান বংশোদ্ভূত। ফ্রান্সের ডানপন্থী নেতা জ্যঁ মরে লঁ পঁ জাতীয় দলে জিদানের অন্তর্ভুক্তির বিরোধিতা করেছিলেন! তার অভিযোগ ছিল ‘এসব বহিরাগতরা ম্যাচের আগে ঠিকমতো জাতীয় সঙ্গীতও গায় না।’ তবে চলতি বছর এ ধরনের কোনো দাবির কথা শোনা যায়নি।
সূত্র : বিবিসি, এনটিভি