দর্শনা চেকপোস্টে দশ সোনার বারসহ আটক

আপডেট: 05:13:04 25/05/2018



img
img

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি : জেলার দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা ইমিগ্রেশন চেকপোস্টে শুল্ক গোয়েন্দারা ভারতে যাওয়ার আগে প্রায় ৫০ লাখ টাকার দশটি সোনার বারসহ এক চোরাচালানিকে আটক করেছেন।
আটক চোরাচালানি আব্দুল মোতালিব ফাতহা (৫২) গাজীপুর জেলার টংগী উপজেলার আন্দুরেল গ্রামের মরহুম আবুল কাশেমের ছেলে। তার পাসপোর্ট নম্বর বিটি ০২৪২৬০৮।
দর্শনা কাস্টমসের ভারপ্রাপ্ত উপ-কমিশনার এ এস এম আরেফিন জাহেদীর নেতৃত্বে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে প্রায় প্রত্যেকদিনই দর্শনা ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট গলিয়ে কিছু যাত্রী ভারতে সোনা পাচার করছে বলে শুল্ক গোয়েন্দাদের কাছে অভিযোগ রয়েছে। যশোরের বেনাপোল শুল্ক গোয়েন্দার রাজস্ব কর্মকর্তা ছবিরানী দত্ত গোপন খবরের ভিত্তিতে আট সদস্যের একটি দল শুক্রবার সকাল সাত থেকে দর্শনা চেকপোস্টে অবস্থান করছিল। সকাল দশটার দিকে ভারতগামী বাংলাদেশি নাগরিক আব্দুল মোতালিব ফাতহা দর্শনা ইমিগ্রেশন কাস্টমসে তার পাসপোর্টের আনুষ্ঠানিকতা সারতে গেলে সেখানেই তাকে আটকে রাখা হয়। পরে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তা ও সাংবাদিকদের উপস্থিতিতে তার দেহ তল্লাশি করে পায়ের জুতার ভেতর থেকে দশটি সোনার বার উদ্ধার করা হয়। যার ওজন এক কেজি, দাম প্রায় ৫০ লাখ টাকা।
উদ্ধার করা সোনার বারগুলো দর্শনা কাস্টমসে জমা দেওয়া হবে। আটক আব্দুল মোতালিব ফাতহাকে দামুড়হুদা থানায় সোপর্দ করে তার বিরুদ্ধে মামলা করা হবে বলে জানান শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তা মিজ দত্ত।

আরও পড়ুন