যশোরে সাংবাদিকের বাবার মৃত্যু

আপডেট: 01:21:39 17/02/2018



img

স্টাফ রিপোর্টার : কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের সাবেক কর্মকর্তা কউসার উদ্দিন ফকির (৮৮) মারা গেছেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।
আজ শুক্রবার দুপুরে তিনি উপশহর ই ব্লকের নিজ বাসভবনে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পর বিকেল পৌনে চারটার দিকে জরুরি বিভাগে দায়িত্বরত ডাক্তার কল্লোলকুমার সাহা জানান, আগেই মারা গেছেন তিনি।
কউসার উদ্দিন ফকির স্ত্রী, পাঁচ ছেলে, এক মেয়েসহ আত্মীয়-স্বজন ও শুভানুধ্যায়ী রেখে গেছেন।
তার বড় ছেলে ফকির শওকত দৈনিক প্রভাতফেরির সম্পাদক। তিনি প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি ও সম্পাদক, অবিভক্ত সাংবাদিক ইউনিয়ন ও সাংবাদিক ইউনিয়ন যশোর এবং বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালন করেছেন।
আরেক ছেলে তৌহিদুল ইসলাম মিন্টু দ্য রিপোর্ট টুয়েন্টিফোর ডট কমের সম্পাদক।
শিল্পী মোজাই জীবন সফরী মরহুম কওসার ফকিরের আরেক ছেলে।
কওসার উদ্দিন ফকির দীর্ঘদিন ধরে বার্ধক্যজনিত নানা রোগে ভুগছিলেন। কিছুদিন আগে পড়ে গিয়ে তার কোমরের হাড় ভেঙে যায়। তখন থেকে তিনি শয্যাশায়ী ছিলেন।
কওসার ফকিরের মৃত্যুসংবাদ শুনে যশোরের সংবাদকর্মী ও স্বজনরা তার বাসভবনে যান। তারা শোকসন্তপ্ত পরিবার-সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।
ছেলে সাংবাদিকনেতা ফকির শওকত সুবর্ণভূমিকে জানান, আগামীকাল শনিবার বাদজোহর উপশহর ই ব্লক জামে মসজিদে মরহুমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। পরে উপশহর কবরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।
কওসার ফকিরের মৃত্যুতে গভির শোক প্রকাশ করেছেন প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন ও সম্পাদক এসএম তৌহিদুর রহমান। শোক প্রকাশ করেছেন সুবর্ণভূমি সম্পাদক আহসান কবীরও।

আরও পড়ুন