মাত্র ২৩ দিন আগে বিয়ে হয়েছিল মেয়েটির

আপডেট: 02:21:52 17/09/2017



img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোর প্রিয়া খাতুন (১৯) নামে এক নববধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে।
মাত্র ২৩ দিন আগে বিয়ে হওয়া মেয়েটি বাপের বাড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে বলে দাবি করা হচ্ছে। তবে পুলিশ বলছে, ঘটনাটি রহস্যজনক। তাই তদন্ত হবে।
প্রিয়া যশোর সদর উপজেলার চুড়ামনকাটি ইউনিয়নের দোগাছিয়া গ্রামের আবুল কাশেমের মেয়ে এবং হৈবতপুর ইউনিয়নের তীরেরহাট গ্রামের আবু সাইদের স্ত্রী।
চুড়ামনকাঠি ইউনিয়নের সংরক্ষিত ওয়ার্ডের মেম্বার শাহানা পারভিন সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘মাত্র ২৩ দিন আগে প্রিয়ার বিয়ে হয়েছে। সে শ্বশুরবাড়ি থেকে শুক্রবার রাতে বাবার বাড়িতে আসে। শনিবার সকালে প্রিয়া চৌগাছায় বলুহ দেওয়ানের মেলায় নিয়ে যেতে বলে। কিন্তু তার মা মেলায় নিতে রাজি হয়নি। এই দুঃখে ঘরের আড়ার সঙ্গে ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে মেয়েটি।’
সাজিয়ালি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আসাদুজ্জামান সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘মেলা যেতে না দেওয়ায় প্রিয়া গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে দাবি করা হচ্ছে। কিন্তু মানুষের মৃত্যু এতো সহজ না। সামান্য এই ব্যাপারে কেউ আত্মহত্যা করতে পারে না। প্রিয়ার মৃত্যুর ঘটনাটি রহস্যজনক।’
‘ময়নাতদন্তের জন্য পুলিশ লাশ উদ্ধার করে জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। রিপোর্ট পাওয়ার পর বিস্তারিত জানা যাবে,’ যোগ করেন এই পুলিশ কর্মকর্তা।

আরও পড়ুন