এবার বাঘারপাড়ায় খুলি উড়ানো লাশ

আপডেট: 05:47:13 21/01/2018



img
img
img

চন্দন দাস, বাঘারপাড়া (যশোর) : বাঘারপাড়ার সীমান্তবর্তী এলাকা যশোর-নড়াইল সড়কের ভাঙ্গুড়া পুরনো ব্রিজের নিচে আরেক অজ্ঞাত (২৪) যুবকের লাশ মিলেছে। এই যুবককেও মাথায় গুলি করে খুলি উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।
এ নিয়ে গত দুইদিনে যশোর ও যশোর সীমান্তবর্তী এলাকায় মোট সাতজনের লাশ উদ্ধার হলো; যাদের প্রত্যেককে গুলি করে মারা হয়েছে। লক্ষ্যণীয় যে, গুলিতে নিহতদের কারো পরিচয় মেলেনি।
রোববার বেলা ১২টার দিকে বাঘারপাড়ার ভাঙ্গুড়ায় সবশেষ লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠায়।
স্থানীয় বাসিন্দা বখতিয়ার রহমান জানান, রোববার সকালে লাশটি পড়ে থাকতে দেখে প্রথমে বাঘারপাড়া ও পরে নড়াইল পুলিশকে খবর দেন তিনি। দুই জেলার সীমান্তবর্তী স্থান হওয়ায় কোনো পুলিশ স্টেশনই প্রথমে দায়িত্ব নিতে চায়নি। পরে বেলা ১২টার দিকে বাঘারপাড়ার ভিটাবল্যা ক্যাম্প পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠায়।
স্থানীয়দের ধারণা, শনিবার রাতে গুলি করে হত্যার পর লাশটি ফেলে রেখে যায় অজ্ঞাত ব্যক্তিরা। লাশের ডান কানের কাছে ও বুকের বাম পাশে গুলির চিহ্ন রয়েছে। এছাড়া তার মুখমণ্ডল বিকৃত অবস্থায় দেখা গেছে।
বাঘারপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মঞ্জুরুল আলম বলেন, ‘স্থানীয় ফাঁড়িকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোরে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছি। বাকিটা ওই ফাঁড়ির ইনচার্জ বলতে পারবেন।’
ভিটাবল্যা ক্যাম্প ইনচার্জ আমির হোসেন বলেন, ‘দুপুর ১২টার দিকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়েছি।’
শরীরে গুলির চিহ্ন আছে কিনা জানতে চাইলে তিনি (আমির হোসেন) বলেন, ‘মনে হচ্ছে দুটি গুলির চিহ্ন রয়েছে। তবে ময়না তদন্তের পর নিশ্চিত হওয়া যাবে।’

আরও পড়ুন