নিহত একজন বাগআঁচড়ার দুখি আরেকজন মুত্তাজুল

আপডেট: 06:06:08 21/05/2018



img
img
img

স্টাফ রিপোর্টার : রোববার দিনগত রাতে যশোরে গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত তিনজনের মধ্যে দুইজনের পরিচয় মিলেছে। তার মধ্যে একজন শার্শা উপজেলার বাগআঁচড়া ইউনিয়নের ট্যাংরা জামতলার রহমান গাজীর ছেলে সিরাজুল ইসলাম দুখি ও অন্যজন একই উপজেলার মহিষকুড়া গ্রামের হারুনর রশিদের ছেলে মুত্তাজুল মোড়ল।
নিহত সিরাজুল ইসলাম দুখির ছেলে রিপন হোসেন দাবি করেন, তার বাবা একজন কৃষক। পরশু দিনগত ভোররাতে দুটি সাদা মাইক্রোবাসে করে ৭-৮ ব্যক্তি পুলিশ পরিচয় দিয়ে বাড়িতে গিয়ে তার বাবাকে ধরে নিয়ে যায়।
‘এর পর আমার বাবার আর কোনো সন্ধান পাইনি। আজ সকালে লোকমুখে খবর শুনে যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে এসে দেখতে পাই আমার বাবা খালি গায়ে একটি চেক লুঙি পরা মাথার পেছনে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পড়ে আছে,’ সুবর্ণভূমিকে বলছিলেন রিপন।
নিহত মুত্তাজুল মোড়লের বড়ভাই সোহরাব হোসেন প্রায় একই ধরনের তথ্য দেন। তিনি সুবর্ণভূমিকে জানান, গতপরশু দিনগত ভোররাতে সেহরির সময় দুটি সাদা মাইক্রোবাসে করে কয়েক ব্যক্তি পুলিশ পরিচয় দিয়ে তার ভাইকে তুলে নিয়ে যায়। বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করে তার সন্ধান মেলেনি।
‘আজ সোমবার সকালে খবর পেয়ে হাসপাতালে মর্গে এসে দেখি, আমার ভাই মুত্তাজুল মোড়লের লাশ পড়ে আছে। তার মাথার পেছনে গুলি করা হয়েছে।’
তবে এই সব তথ্যের সঙ্গে দ্বিমত পোষণ করছে পুলিশ। যশোর কোতয়ালী থানার ইনসপেক্টর (তদন্ত) আবুল বাশার সুবর্ণভূমিকে বলেন, মাদক ব্যবসায়ীদের মধ্যে গোলাগুলিতে তিনজন মারা যায়।
তিনি উল্লিখিত দুইজনের পরিচয় নিশ্চিত করেন। এখন পর্যন্ত একজনের পরিচয় পাওয়া যায়নি বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

আরও পড়ুন