বাইক থেকে পড়ে ট্রাকে পিষ্ট পুলিশ কর্মকর্তার স্ত্রী

আপডেট: 05:06:19 16/01/2018



img
img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোরে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে সেলিনা বেগম (৩৮) নামে এক পুলিশ সদস্যের স্ত্রী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন তার স্বামী আব্দুর রশিদ।
মঙ্গলবার দুপুর দুইটার দিকে যশোর শহরতলীর মুড়লির মোড়ে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।
পুলিশ ট্রাকটি (কুষ্টিয়া ট-১১-১২২৩) আটক করেছে।
দুর্ঘটনার কারণে যশোর-খুলনা সড়কে যানজটের সৃষ্টি হয় এবং প্রায় এক কিলোমিটার যানবাহনের লম্বা লাইন পড়ে যায়। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি সামাল দেয় এবং যানবাহন চলাচল শুরু হয়।
পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। আহত পুলিশ সদস্যকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
আহত পুলিশ সদস্য আব্দুর রশিদ খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশে কর্মরত বলে জানিয়েছেন।
আহতের চাচাতোভাই আব্দুর রহিম ও প্রত্যক্ষদর্শীরা সুবর্ণভূমিকে জানান, দুপুরে আব্দুর রশিদ ব্যক্তিগত কাজে মোটরসাইকেলে স্ত্রী সেলিনা বেগমকে নিয়ে যশোর আসেন। দুইটার দিকে শহরতলীর মুড়লি মোড়ে একটি বাসকে পাশ কাটাতে গেলে মোটরসাইকেলের পেছনে থাকা সেলিনা নিচে পড়ে যান। এসময় পেছন থেকে আসা একটি ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান তিনি এবং গুরুতর আহত হন আব্দুর রশিদ।
খবর পেয়ে পরিবারের লোকজন আব্দুর রশিদকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান।
কোতয়ালী থানার ইনসপেক্টর (তদন্ত) আবুল বাশার বলেন, 'যতদূর শুনেছি আহত আব্দুর রশিদ খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের এএসআই।'
দুর্ঘটনার পর কোনো যানজট হয়নি বলে তিনি দাবি করেন।

আরও পড়ুন