১০২ দিন পর জামিন শহিদুল আলমের

আপডেট: 04:23:31 15/11/2018



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : সুপরিচিত ফটোগ্রাফার শহিদুল আলমকে বৃহস্পতিবার জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।
তিনি ১০২ দিন ধরে আটক রয়েছেন।
শহিদুল আলমের আইনজীবী সারা হোসেন জানিয়েছেন, জামিন দেওয়ার ক্ষেত্রে আদালত তিনটি বিষয় বিবেচনা করেছেন।
সারা হোসেন বলেন, মি. আলমের বিপক্ষে পুলিশ যে এফআইআর দাখিল করেছে সেটির সঙ্গে আল-জাজিরাতে তার দেওয়া সাক্ষাৎকারের কোনো মিল নেই। অর্থাৎ পুলিশ যেসব অভিযোগ এনেছে সেসব কথা তিনি আল-জাজিরার সাক্ষাৎকারে বলেননি। জামিন দেওয়ার ক্ষেত্রে আদালত এ বিষয়টি বিবেচনা করেছেন বলে জানান সারা হোসেন।
দ্বিতীয়ত, জামিন দেওয়ার ক্ষেত্রে আদালত মি. আলমের বয়স বিবেচনায় নিয়েছেন। তৃতীয়ত, শহিদুল আলমের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা এখনো তদন্তাধীন আছে।
আইনজীবী সারা হোসেন আরো বলেন, মি. আলমকে যখন রিমান্ডে নেওয়া হয়েছিল তখন তিনি স্বীকারোক্তিমূলক কোনো জবানবন্দি দেননি। এ বিষয়টিও আদালত বিবেচনায় নিয়েছেন।
গত আগস্টে শিক্ষার্থীদের নিরাপদ সড়ক আন্দোলন চলার পঞ্চম দিনে শহিদুল আলমকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা পুলিশ। এরপর তার বিরুদ্ধে তথ্য প্রযুক্তি আইনে মামলা করা হয়।
শহিদুল আলমের বিরুদ্ধে নিরাপদ সড়ক আন্দোলন নিয়ে 'ইন্টারনেটে ভীতি ও সন্ত্রাস ছড়াতে কল্পনাপ্রসূত উস্কানিমূলক মিথ্যা তথ্য' প্রচারের অভিযোগ আনা হয়।
এর আগে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম শহিদুল আলমের জামিন নামঞ্জুর করেন।
সূত্র : বিবিসি

আরও পড়ুন