এবার সুলতান মেলা দশদিন

আপডেট: 10:42:07 29/01/2019



img

মৌসূমী নিলু, নড়াইল :  বিশ্ববরেণ্য চিত্রশিল্পী এসএম সুলতানের ৯৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে এবার সুলতানমেলা হবে দশদিন ধরে।  আগামী ২৭ ফেব্রুয়ারি মেলা শুরু হবে।
নড়াইল শহরের সুলতান মঞ্চে মেলা চলবে ৮ মার্চ পর্যন্ত।
জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এসএম সুলতান ফাউন্ডেশন ও জেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠিত সভায় এ সিদ্ধান্ত  হয়।
এসএম সুলতান ফাউন্ডেশনের সভাপতি ও জেলা প্রশাসক আনজুমান আরার সভাপতিত্বে এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মোঃ মনিরজ্জামান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. ইয়ারুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) কাজী মাহাবুবুর রশিদ, সুলতান ফাউন্ডেশনের সদস্য সচিব আশিকুর রহমান মিকু প্রমুখ।
মেলার ১০ দিনব্যাপী কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- চিত্র প্রদর্শনী, চিত্রাংকন, কবিতা আবৃত্তি প্রতিযোগিতা, প্রতিদিন এসএম সুলতানের জীবন ও কর্মের উপর আলোচনা, লাঠিখেলা, ভলিবল, কুস্তি প্রতিযোগিতা, সুলতান পদক প্রদান, প্রতিদিন সন্ধ্যায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান।
চিত্রশিল্পী এস এম সুলতান ১৯২৪ সালের ১০ আগস্ট তৎকালিন মহকুমা নড়াইলের চিত্রা নদীর পাশে মাছিমদিয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা মেছের আলি ও মাতা মাজু বিবি।
চেহারার সঙ্গে মিলিয়ে বাবা-মা আদর করে নাম রেখেছিলেন লাল মিয়া। এস এম সুলতানের ৭০ বছরের জীবনে তিনি তুলির আঁচড়ে এঁকেছেন ‘পাট কাটা’, ‘ধান কাটা’, ‘ধান ঝাড়া’, ‘জলকে চলা’, ‘চর দখল’, ‘গ্রামের খাল’, ‘মৎস শিকার’ সহ বিখ্যাত সব ছবি।
এই চিত্রশিল্পী ১৯৮২ সালে একুশে পদক, ১৯৮৪ সালে বাংলাদেশ সরকারের রেসিডেন্স আর্টিস্ট হিসেবে স্বীকৃতি, ১৯৮৬ সালে চারুশিল্পী সংসদ সম্মাননা এবং ১৯৯৩ সালে রাষ্টীয়ভাবে স্বাধীনতা পদক প্রদান করা হয়।
১৯৯৪ সালের ১০ অক্টোবর যশোরের সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে শিল্পী সুলতান মৃত্যুবরণ করেন।
১৯৫০ সালে ইউরোপ সফরের সময় যৌথ প্রদর্শনীতে তার ছবি সমকালীন বিশ্ববিখ্যাত চিত্রশিল্পী পাবলো পিকাসো, ডুফি, সালভেদর দালি, পলক্লী, কনেট, মাতিসের ছবির সঙ্গে প্রদর্শিত হয়।