অভয়নগরে কিশোরের বিরুদ্ধে শিশু ধর্ষণের অভিযোগ

আপডেট: 04:05:21 08/03/2018



img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোরের অভয়নগরে লিটন গাজি (১৬) নামে এক কিশোর ছয় বছর বয়সী একটি শিশুকে ধর্ষণ করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। বুধবার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার একটি গ্রামে শিশুটির বাড়ির পাশে বাঁশবাগানে লিটন এই অপকর্ম করে বলে অভিযোগ করা হচ্ছে।
‘ধর্ষিত’ শিশুটিকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
সন্দেহভাজন ধর্ষক লিটন গাজি ও শিশুটির বাড়ি একই গ্রামে। শিশুটির বাবা রাজমিস্ত্রির কাজ করেন।
ওই রাজমিস্ত্রি সুবর্ণভ‍ূমিকে জানান, তার মেয়েটি স্থানীয় মাদরাসায় পড়ে। বুধবার সকালে তিনি কাজে যাওয়ার পর মেয়েটি মাদরাসা থেকে বেলা সাড়ে ১২টার দিকে বাড়ি ফিরছিল। এসময় লিটন গাজি জোর করে বাড়ির পাশে বাঁশবাগানে নিয়ে তাকে ধর্ষণ করে। শিশুটি চিৎকার দিলে লিটন পালিয়ে যায়।
আক্রান্ত শিশু সুবর্ণভূমিকে বলে, ‘দুপুর বেলায় আমি বাড়ি যাচ্ছিলাম। এসময় লিটন আমার মুখ চেপে জোর করে বাঁশবাগানের মধ্যে নিয়ে যায়। সে আমার প্যান্ট খোলে...।’
মেয়েটির মা সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘আমার মেয়েকে ধর্ষণ করায় কয়েকজন মহিলা মিলে লিটনকে বাড়ি থেকে ধরে আনি। কিন্তু লিটনের বাবা জালাল আমাদের বাড়িতে এসে তাকে চড়-থাপ্পড় দিতে দিতে নিয়ে চলে যায়। পরে আমরা থানায় গেলে পুলিশ মেয়েকে হাসপাতালে ভর্তি করতে বলে।’
হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডের সিনিয়র নার্স শিরিন সুলতানা জরুরি বিভাগের ডাক্তার কল্লোলকুমার সাহার উদ্ধৃতি দিয়ে সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘শিশুটিকে সেক্সুয়াল অ্যাসাল্ট উইথ রেপ ভিকটিম হিসেবে ভর্তি করা হয়েছে। গাইনি ডাক্তার তাকে পরীক্ষা করবেন।’
জানতে চাইলে গাইনি বিভাগের ডাক্তার কানিজ ফাতেমা সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘শুনেছি ছয় বছরের একটি ধর্ষিত শিশুকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আমি এসেই মেয়েটিকে ওটিতে নিয়ে যাবো।’
অভয়নগর থানার ওসি শেখ গনি মিয়া বুধবার রাতে সুবর্ণভূমিকে বলেন, ‘ছয় বছরের একটি শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে বলে অভিযোগ করা হচ্ছে। ঘটনার ব্যাপারে থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।’

আরও পড়ুন