'মুস্তাফিজ থাকলে ইংল্যান্ডকে হারাতে পারতাম'

আপডেট: 08:53:52 09/12/2016



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : গত অক্টোবরে ইংল্যান্ড সিরিজে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সাফল্য ছিল একটি টেস্ট জয়। টেস্ট ক্রিকেটের অন্যতম পরাশক্তি দলটির বিপক্ষে এই সাফল্য বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা অর্জন। চোটের কারণে সেই সিরিজে ছিলেন না বাঁহাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। তার অভাবটা ভালোভাবেই বোধ করেছিলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। কাটার-মাস্টার থাকলে টেস্ট ও ওয়ানডে দুই সিরিজেই বাংলাদেশ জিততে পারত বলে মনে করেন তিনি।
গত জুলাইতে সাসেক্সের হয়ে ন্যাটওয়েস্ট টি-টোয়েন্টি ব্লাস্ট ও রয়্যাল লন্ডন কাপে অংশ নিতে গিয়েই চোটে আক্রান্ত হয়েছিলেন মুস্তাফিজ। এই চোট এতটাই গুরুতর ছিল, তাকে অস্ত্রোপচার পর্যন্ত করাতে হয়েছিল। এরপর ঢাকায় ফিরে দীর্ঘদিন ধরে পুনর্বাসনে ছিলেন এই বাঁ-হাতি পেসার। এই চোটের কারণে ঘরের মাঠে আফগানিস্তান ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজে খেলতে পারেননি তিনি।
তাই মাশরাফির আপসোস, মুস্তাফিজ থাকলে ঘরের মাঠে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সাফল্য পেত বাংলাদেশ। শুক্রবার মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘সর্বশেষ ইংল্যান্ড সিরিজে মুস্তাফিজের মতো পেসারকে আমরা পাইনি। সে চোটে আক্রান্ত ছিল। এটি আমাদের জন্য কিছুটা হলেও ক্ষতি হয়েছিল। সে থাকলে হয়তো টেস্ট এবং ওয়ানডে দুই সিরিজই জিততে পারতাম আমরা।’
তাই সেরা খেলোয়াড়দের ফিট থাকাটা জরুরি বলে মনে করেন বাংলাদেশ অধিনায়ক, ‘দলের স্বার্থে আমাদের সেরা খেলোয়াড়দের ফিট থাকাটা খুবই জরুরি। মুস্তাফিজের সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। এখন সে মোটামুটি ভালো। আরো কিছুদিন সময় আছে, আশা করছি এর মধ্যে সে পুরোপুরি ফিট হয়ে যাবে।’
আর কদিন বাদে শুরু হচ্ছে নিউজিল্যান্ড সিরিজ। আগামী ২৬ ডিসেম্বর থেকে এই সিরিজ শুরু হবে ওয়ানডে দিয়ে। আসরের দ্বিতীয় ও তৃতীয় ওয়ানডে হবে ২৯ ও ৩১ ডিসেম্বর । তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলবে ৩, ৬ ও ৮ জানুয়ারি। আর দুটি টেস্ট হবে ১২ থেকে ১৬ এবং ২০ থেকে ২৪ জানুয়ারি।
সূত্র : এনটিভি