করোনা উপসর্গ নিয়ে সাতক্ষীরায় চারজনের মৃত্যু

আপডেট: 01:44:07 18/09/2020



img

সাতক্ষীর প্রতিনিধি : করোনা উপসর্গ নিয়ে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আট ঘণ্টার ব্যবধানে দুই নারীসহ চারজনের মৃত্যু হয়েছে।
বৃহস্পতিবার ভোররাত থেকে সকাল সাড়ে আটটার মধ্যে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তারা মারা যান।
এনিয়ে জেলায় করোনার উপসর্গ নিয়ে এ পর্যন্ত মারা গেলেন অন্তত ১০০ জন। আর ভাইরাসটিতে নিশ্চিতভাবে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরো ৩১ জন।
আজ মৃত ব্যক্তিরা হলেন, কালিগঞ্জ উপজেলার নলতা এলাকার ওমর হোসেনের স্ত্রী তাহমিনা খাতুন (৫৫), তালা উপজেলার মাগুরা বারুইপাড়া এলাকার মৃত শমসের আলীর স্ত্রী রিজিয়া খাতুন (৭০), শ্যামনগর উপজেলার চাঁদখালি পাতড়াখোলা গ্রামের হারান মণ্ডলের ছেলে বাসুদেব মণ্ডল (৭৮) এবং সদর উপজেলার বৈকারী এলাকার রাসেদুলের ছেলে আব্দুল মজিদ (২৪)।
মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. রফিকুল ইসলাম জানান, জ্বর ও শ্বাসকষ্টসহ করোনা উপসর্গ নিয়ে তাহমিনা খাতুন গত ৮ সেপ্টেম্বর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে ভর্তি হন। আজ বৃহস্পতিবার ভোররাতে তিনি মারা যান।
একই উপসর্গ নিয়ে রিজিয়া খাতুন গত ২৫ আগস্ট ভর্তির পর আজ ভোররাত তিনটার দিকে মারা যান।
এছাড়া গত ১২ সেপ্টেম্বর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে ভর্তি হয়েছিলেন বাসুদেব মণ্ডল। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার সকাল পৌনে সাতটার দিকে তিনি মারা যান।
এদিকে, করোনার উপসর্গ নিয়ে গত ১৬ সেপ্টেম্বর আব্দুল মজিদ মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। তিনিও আজ বৃহস্পতিবার সকাল আটটার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।
তত্ত্বাবধায়ক ডা. রফিকুল ইসলাম আরো জানান, ইতিমধ্যে মৃতদের শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে তা পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠানো হয়েছে।
সাতক্ষীরার সিভিল সার্জন ডা. হুসাইন শাফায়াত জানান, স্বাস্থ্যবিধি মেনে মৃত ব্যক্তিদের লাশ দাফন ও সৎকারের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। লকডাউন করা হয়েছে তাদের বাড়ি।

আরও পড়ুন