কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে হত্যা : মামলা, লাশ হস্তান্তর

আপডেট: 11:21:21 14/08/2020



img

স্টাফ রিপোর্টার : যশোর কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে তিন কিশোর নিহতের ঘটনায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে মামলা হয়েছে।
নিহত পারভেজের বাবা রোকা মিয়া কোতয়ালী থানায় আজ মামলাটি করেন।
এদিকে সন্ধ্যার পর নিহত তিন কিশোরের মরদেহ হাসপাতাল মর্গ থেকে পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক সার্কেল) গোলাম রব্বানী জানান, নিহত পারভেজের বাবা খুলনার মহেশ্বরপোতা গ্রামের বাসিন্দা রোকা মিয়া বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের আসামি করে মামলা করেছেন। মামলা নম্বর ৩৫, তারিখ ১৪.০৮.২০২০।
তিনি আরো জানান, এ মামলার অজ্ঞাত আসামিরা মূলত শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রের কর্মকর্তা, কর্মচারী ও 'বন্দি'রা। পুলিশ তদন্ত করে ঘটনায় জড়িতদের শনাক্ত করবে এবং তাদের আইনের আওতায় আনবে। পুলিশ নিরপেক্ষতা ও স্বচ্ছতার সঙ্গে তদন্ত করে আসামি শনাক্ত করবে, যাতে অহেতুক কেউ হয়রানির শিকার না হয়।
এদিকে, মামলার পর নিহতদের মরদেহ পরিবারের সদস্যদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। কোতয়ালী থানার ইনসপেক্টর (তদন্ত) শেখ তাসমীম আলম উপস্থিত থেকে মরদেহ বুঝিয়ে দেন।
এসময় মামলার বাদী রোকা মিয়া বলেন, 'সরকারি একটি শিশু সংশোধনাগারে এ ধরনের নির্যাতন ও হত্যাকাণ্ড অনভিপ্রেত। সন্তান হারিয়ে আমার পরিবার ভেঙে পড়েছে। সন্তান হত্যার ন্যায়বিচার পেতে তাই মামলা করেছি। আশা করি, পুলিশ তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত অপরাধীদের শনাক্ত করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করবে।'

আরও পড়ুন