ক্রিকেটে ফেরার দিনটা জয়ে রাঙালো বাংলাদেশ

আপডেট: 06:56:17 20/01/2021



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : ৩১৪ দিন পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরাটাকে জয়ে রাঙিয়েছে বাংলাদেশ। সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে স্বাগতিকরা ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারিয়েছে ৬ উইকেটে।
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরার দিনে আবার আইসিসি ওয়ানডে লিগেও অভিষেক হয়েছে বাংলাদেশের। সেখানে প্রথম ম্যাচ জিতে বাংলাদেশ অর্জন করলো ১০ পয়েন্ট! ২০২৩ বিশ্বকাপে সরাসরি খেলতে হলে স্বাগতিক ভারত ছাড়া বাকি দলগুলোকে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ সাতে থাকতে হবে।
এমন লক্ষ্যে মিরপুরে প্রথম ওয়ানডেতে খর্বশক্তির ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হয়েছিল স্বাগতিকরা। এ দলটিতে অভিষেকই হয়েছে ৬ জনের। এমন দলকে মাত্র ১২২ রানে রুখে দিলেও জয়টা দাপুটে ছিল না বাংলাদেশের। বিশেষ করে ১২৩ রানের লক্ষ্যে খেলতে নামা বাংলাদেশকে কঠিন সময় উপহার দিয়েছেন ক্যারিবীয় বোলাররা। বিশেষ করে স্পিনার আকিল হোসেন একাই ২৬  রানে গুরুত্বপূর্ণ তিন উইকেট নিয়ে চাপে ফেলার চেষ্টা করেছেন।
অথচ একটা সময় বিনা উইকেটে পাওয়ার প্লেতে বাংলাদেশ তুলে নিয়েছিল ৩৯ রান। দুই ওপেনারের মাঝে তামিম কিছুটা আগ্রাসী ভঙ্গিতে খেলেছেন। রয়ে-সয়ে খেলেন আরেক ওপেনার লিটন। ১৪তম ওভারে বাঁহাতি স্পিনার আকিল হোসেনের ঘূর্ণিতে আর থিতু হতে পারেননি লিটন। বোল্ড হয়ে ফিরে গেছেন ১৪ রানে।
সাকিবের বদলে তিনে নামা শান্ত অবশ্য আস্থার প্রতিদান দিতে পারেননি। সেই আকিলের স্পিনে ঘায়েল হয়ে ফিরে গেছেন ১ রানে। তামিম আগলে খেলতে থাকলেও ব্যক্তিগত ৪৪ রানে করে বসেন ভুল। জেসনের বলে ক্রিজ ছেড়ে বেরিয়ে এসেছিলেন। স্টাম্প ভেঙে দিয়ে তাকে সাজঘরের পথ দেখিয়েছেন ডা সিলভা।
এরপর সেট ব্যাটসম্যান ফিরলে মুশফিকুর রহিম-সাকিব আল হাসান মিলে এগিয়ে নিতে থাকেন দলকে। কিন্তু সাকিবকে বিদায় দিয়ে বাংলাদেশের ওপর কিছুটা চাপ সৃষ্টি করেন আকিল হোসেন। ১৯ রান করা সাকিব ফেরেন বোল্ড হয়ে। এ পরিস্থিতিতে জয় পেতে কিছুটা সময় নিয়ে খেলতে থাকেন মাহমুদউল্লাহ ও মুশফিকুর রহিম। শেষ পর্যন্ত তাদের ব্যাটেই ৪ উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশ জয় নিশ্চিত করেছে ৩৩.৫ ওভারে। মুশফিক অপরাজিত ছিলেন ১৯ রানে, মাহমুদউল্লাহ ৯ রানে।
এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে কোনও প্রতিরোধ গড়তে পারেনি ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সফরকারীরা ৩২.২ ওভারে অলআউট হয়েছে মাত্র ১২২ রানে। অথচ কোণঠাসা এই ওয়েস্ট ইন্ডিজকেই একটা সময় ভালো স্কোরের স্বপ্ন দেখাচ্ছিলেন রোভম্যান পাওয়েল ও কাইল মেয়ার্স। পাল্টা প্রতিরোধ গড়ে ৫৯ রানও তুলে ফেলেছিল এই জুটি। ক্যারিবীয়দের এই প্রতিরোধ ভেঙেছেন মূলত অভিষিক্ত পেসার হাসান মাহমুদ। পাওয়েলকে গ্লাভসবন্দি করিয়েছেন মুশফিকের। অভিষেকের দিনেই সুবাস ছড়িয়েছেন তিনি। ২৮ রানে নিয়েছেন তিন উইকেট। অপর দিকে নিষেধাজ্ঞা শেষে নিজের প্রথম আন্তর্জাতিক ম্যাচে ফেরা সাকিব ছিলেন পাদপ্রদীপে আলোয়। মাত্র ৭.২ ওভারে মাত্র ৮ রান দিয়ে নিয়েছেন ৪ উইকেট। যা ছিল ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে বাংলাদেশের কারও সেরা বোলিং। ম্যাচসেরাও হয়েছেন তিনি। বাংলাদেশের হয়ে আরও দুটি উইকেট নিয়েছেন মোস্তাফিজ।
সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন

আরও পড়ুন