টিটোর বাড়িতে রাজনীতিকসহ অনুরাগীদের ঢল, শোক

আপডেট: 10:50:22 10/01/2021



img
img

স্টাফ রিপোর্টার : বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ সাবেক প্রতিমন্ত্রী, যশোর-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য খালেদুর রহমান টিটোর নামাজে জানাজা আগামীকাল সোমবার বাদ জোহর যশোর কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হবে। এরপর তাকে সমাহিত করা হবে শহরের কারবালা গোরস্তানে। এদিকে বর্ষীয়ান এ নেতাকে শেষবারের মতো দেখতে তার বাসভবনে ঢল নেমেছে রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক নেতা, অনুরাগীসহ সবস্তরের মানুষের। একইসাথে তার মৃত্যুতে শোক জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে বিভিন্ন সংগঠন।
রোববার (১০ জানুয়ারি) দুপুরে যশোর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন খালেদুর রহমান টিটো। তার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে বিভিন্ন রাজনৈতিক সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতাসহ সর্বস্তরের মানুষ তাকে শেষবারের মতো দেখতে তার শহরের ষষ্ঠিতলার বাসভবনে যান। তারা শোকসন্তপ্ত পরিবারকে সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
খবর শুনে খালেদুর রহমান টিটোর মরদেহ দেখতে তার বাড়িতে যান স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য, যশোর-৬ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার, সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, যশোর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মনিরুল ইসলাম মনির, ন্যাপের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট এটিএম এনামুল হক, বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির (মার্কসবাদী) কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ইকবাল কবির জাহিদ, বিএনপির খুলনা বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক নার্গিস বেগম, সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ সাবেরুল হক সাবু, বিএনপি নেতা আলহাজ মিজানুর রহমান খান, দেলোয়ার হোসেন খোকন, নগর সভাপতি ও সাবেক মেয়র মারুফুল ইসলাম, মণিরামপুর উপজেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট শহিদ ইকবাল, জাতীয় পার্টির সাবেক জেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট মাহবুব আলম বাচ্চু, বর্তমান সভাপতি শরিফুল ইসলাম চৌধুরী সরু, যশোর পৌরসভার কাউন্সিলর মকসিমুল বারী অপু, হাবিবুর রহমান চাকলাদার মনি, সন্তোষ দত্ত প্রমুখ।
এদিকে খালেদুর রহমান টিটোর মৃত্যুতে শোক জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ার হোসেন। শোকবার্তায় তিনি বলেন, 'খালেদুর রহমান টিটো ছিলেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ নীতি-নির্ধারণী ফোরাম রিজেন্ট বোর্ডের সদস্য । তিনি ছিলেন তৃণমূল থেকে উঠে আসা একজন বলিষ্ঠ রাজনীতিবিদ। খেটে-খাওয়া মেহনতি মানুষের জন্য তিনি আজীবন কাজ করেছেন। আমি তার মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করছি এবং বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি।'
অনরূপ শোক বিবৃতি দিয়েছে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি, কর্মকর্তা সমিতি ও কর্মচারী সমিতি। একইসঙ্গে যবিপ্রবি ছাত্রলীগ, সাংবাদিক সমিতিসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনও তার প্রয়াণে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছে।
শোক প্রকাশ করেছেন প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন ও সম্পাদক আহসান কবীর। এক যুক্ত বিবৃতিতে তারা বলেন, টিটোর মৃত্যুতে যশোরবাসী রাজনৈতিক অভিভাবকশূন্য হলো। তারা মরহুমের আত্মার শান্তি ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।
এছাড়া গভীর শোক প্রকাশ ও শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে বিবিৃতি দিয়েছেন সাংবাদিক ইউনিয়ন যশোরের সভাপতি শহিদ জয় ও সাধারণ সম্পাদক আকরামুজ্জামান। এক বিবৃতিতে তারা খালেদুর রহমান টিটোর রুহের মাগফেরাত কামনা করেন।

আরও পড়ুন