দামুড়হুদা উপজেলার নয়টি গ্রাম লকডাউন

আপডেট: 08:39:17 06/06/2021



img

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি: চুয়াডাঙ্গার ভারত সীমান্তবর্তী দামুড়হুদা উপজেলার নয়টি গ্রাম লকডাউন করা হয়েছে। গ্রামগুলো হলো, কুড়ুলগাছী ইউনিয়নের ফুলবাড়ী, চাকুলিয়া, ঠাকুরপুর এবং পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের ঝাঁঝাডাঙ্গা, কামারপাড়া, বাড়াদী, নাস্তিপুর, ছোটবলদিয়া, বড়বলদিয়া।
রোববার সকাল থেকে এ গ্রামগুলো উপজেলা প্রশাসন সাত দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছে।
দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার দিলারা রহমান বলেন, সীমান্তবর্তী এলাকায় হঠাৎ করে করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় উপজেলা প্রশাসন সাত দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছে। ১২ জুন পর্যন্ত লকডাউন চলবে। সাধারণ মানুষদের চলাচলে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। আর বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে স্থানীয় চায়ের দোকানগুলো। লালপতাকা টানিয়ে ও বাঁশ দিয়ে রাস্তা ব্যারিকেড দেওয়া এবং ওই এলাকার জনসাধারণকে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের হতে নিষেধ করা হয়েছে।
তিনি আরও বলেন, ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট যেন ছড়িয়ে না পড়ে এবং করোনার সংক্রমণ বৃদ্ধি না পায় সে জন্য আগে থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হলো।
দামুড়হুদা উপজেলার পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এসএএম জাকারিয়া আলম বলেন, সাধারণ মানুষ নিরাপদ ও করোনামুক্ত থাকতে লকডাউন মেনে চলছে। লকডাউনে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হবে অসহায় ও দুস্থদের।
এর আগে গত ২ জুন কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়নের শিবনগর, হরিরামপুর, জাহাজপোতা, পীরপুরকুল্লা, মুন্সীপুর, কুতুবপুর ও হুদাপাড়া গ্রাম লকডাউন ঘোষণা করেন উপজেলা প্রশাসন।

আরও পড়ুন