নেশাসক্ত ছেলে কোপালো মাকে, অবস্থা গুরুতর

আপডেট: 02:56:07 22/10/2020



img

স্টাফ রিপোর্টার, বেনাপোল (যশোর) : শার্শায় নেশার টাকা না পেয়ে মাকে হত্যা করতে কুপিয়ে জখম করেছে মাদকাসক্ত ছেলে তহিদুল ইসলাম তহিদ (৩৫)। গুরুতর অবস্থায় মা স্বরুপজানকে (৫৫) যশোর জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। তার অবস্থা আশংকাজনক।
স্বরুপজান শার্শার সম্বন্ধকাঠি গ্রামের রাজমিস্ত্রি নূর মোহাম্মদ টকির স্ত্রী। গ্রামবাসী মাদকাসক্ত ছেলে তহিদকে ধরে পুলিশে সোপর্দ করেছেন।
স্থানীয়দের ভাষ্য, শার্শার সম্বন্ধকাঠি গ্রামের রাজমিস্ত্রি নূর মোহাম্মদ টকির ছেলে তহিদ দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন ধরনের নেশায় আসক্ত। বৃহস্পতিবার সকালে মা স্বরুপজান রান্না করছিলেন। ওই সময় নেশাসক্ত তহিদ নেশার জন্য মায়ের কাছে টাকা চায়। অভাবি স্বরুপজান নেশার টাকা দিতে অস্বীকার করেন। একপর্যায়ে তহিদ তার মায়ের মাথায় দা দিয়ে কোপ দেয়। প্রচুর রক্তক্ষরণে স্বরুপজান জ্ঞান হারান। মাকে মৃত ভেবে তহিদ বস্তায় ভরার চেষ্টা করে। বিষয়টি প্রতিবেশিরা টের পেলে তহিদ পালিয়ে যায়।
রক্তাক্ত অবস্থায় প্রতিবেশিরা স্বরুপজানকে শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।
এদিকে, সম্বন্ধকাঠি গ্রামের লোকজন কিছু সময়ের মধ্যে বুরুজবাগান মাঠ থেকে তহিদকে ধরে বাড়িতে এনে বেঁধে রেখে পুলিশে খবর দেন। পরে এসআই ফারুক তাকে থানায় নিয়ে যান।
শার্শা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বদরুল আলম খান জানান, তহিদকে আটক করা হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আরও পড়ুন