বাঘারপাড়া আওয়ামী লীগে নির্বাচিত কমিটির আকাঙ্ক্ষা

আপডেট: 07:51:39 19/10/2019



img

চন্দন দাস, বাঘারপাড়া (যশোর) : বাঘারপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের আসন্ন সম্মেলনকে সামনে রেখে কাল রোববার আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা আহ্বান করা হয়েছে। বিকেল তিনটায় দলীয় কার্যালয়ে এ সভা হবে।
দলের উপজেলা সভাপতি রণজিৎকুমার রায় ও সাধারণ সম্পাদক জুলফিকার আলী জুলাই স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়।
সর্বশেষ চলতি বছরের ৩ ফেব্রুয়ারি দ্বিধা-বিভক্ত বাঘারপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হয়েছিল এ দুই নেতার স্বাক্ষরে। এর আগে পৃথকভাবে কয়েকবার সভা ডেকেছিল বিবদমান দুই গ্রুপ।
এদিকে, দীর্ঘ ১৫ বছর পর আগামী ১২ নভেম্বর অনুষ্ঠেয় সম্মেলনকে ঘিরে বাঘারপাড়া আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের মধ্যে প্রাণচাঞ্চল্য সৃষ্টি হওয়ার পাশাপাশি শীর্ষ দুই পদের প্রার্থীদের মধ্যে প্রতিযোগিতামূলক তৎপরতা শুরু হয়েছে। সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদের প্রার্থীরা নিজেকে ত্যাগী, যোগ্য ও দলের জন্য নিবেদিতপ্রাণ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে নানাভাবে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।
এদিকে তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা গণতান্ত্রিক পন্থায় ভোটাভুটির মাধ্যমে উপজেলা কমিটি গঠনের জোর দাবি জানিয়েছেন। ‘চাপিয়ে’ দেওয়া কমিটি তারা স্বীকৃতি দিতে রাজি নয়। সেক্ষেত্রে দায়িত্বশীলদের সৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন তৃণমূল আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মী ও সমর্থকরা। ভোটাভুটির মাধ্যমে কমিটি গঠনের দাবি রয়েছে পদপ্রত্যাশী বেশিরভাগ নেতারও।
জানতে চাইলে নারিকেলবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাস্টার এমদাদ হোসেন বলেন, ‘আমি ধারণা থেকে বলতে পারি, ভোটাভুটি হবে না। তবে সুন্দর একটি কমিটি পেতে চাইলে তৃণমূলের মতামতের ভিত্তিতেই করা উচিত। আমিও ব্যক্তিগতভাবে ভোট চাই।’
উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক ও দোহাকুলা ইউনিয়ন সভাপতি অরুণ অধিকারী বলেন, ‘কমিটি ভোটের মাধ্যমে হওয়া দরকার। আমি চাই গণতান্ত্রিক পন্থায় উপজেলা আওয়ামী লীগের কমিটি করা হোক।’
জামদিয়া ইউনিয়নের দুই নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি দ্বীন মহম্মদ ও সাধারণ সম্পাদক ফারুক হোসেন চান তাদের মূল্যায়ন। সেক্ষেত্রে ভোটাভুটির মাধ্যমে উপজেলা কমিটি গঠনের দাবি তাদের।
তৃণমূল পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের মতামতের ভিত্তিতে উপজেলা কমিটি দেখতে চান রায়পুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল মালেক মণ্ডল ও সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন।
রোববারের বর্ধিত সভায় তৃনমূলের নেতা-কর্মীরা গণতান্ত্রিক পন্থায় ভোটাভুটির মাধ্যমে উপজেলা কমিটি গঠনের দাবি তুলবেন বলে জানিয়েছেন।
আগামী ১২ নভেম্বর বাঘারপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনকে সামনে রেখে সভাপতি পদে দুই নেতার নাম শোনা যাচ্ছে। এর মধ্যে অন্যতম বর্তমান কমিটির সভাপতি সংসদ সদস্য রনজিৎ রায়। এ পদে অপর প্রার্থী হিসেবে উপজেলা কমিটির সিনিয়র সহসভাপতি ও ধলগ্রাম ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আতিয়ার রহমান সরদারের নাম প্রচার শুরু হয়েছে সম্প্রতি।
আর সাধারণ সম্পাদক পদে যাদের নাম জোরেশোরে শোনা যাচ্ছে তারা হলেন, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা ও বাঘারপাড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাজমুল ইসলাম কাজল, জেলা আওয়ামী লীগের আরেক নেতা ও বর্তমান উপজেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক জুলফিকার আলী জুলাইয়ের সহোদর অধ্যক্ষ আজগর আলী, পৌর আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক ও পৌরসভার মেয়র কামরুজ্জামান বাচ্চু, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ মোল্যা, যশোর জেলা পরিষদের সদস্য, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ইঞ্জিনিয়ার বিপুল ফারাজী, জহুরপুর ইউনিয়ন পরিষদের দুইবারের চেয়ারম্যান দিলু পাটোয়ারী। এছাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক প্রভাষক নজরুল ইসলাম সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থী হওয়ার কথা প্রকাশ করেন স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে।
বাঘারপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সবশেষ ত্রি-বার্ষিক কাউন্সিল অনুষ্ঠিত হয় ২০০৪ সালের ১৪ জানুয়ারি। দীর্ঘ ১৫ বছর পর আগামী ১২ নভেম্বর সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। এ সম্মেলনকে ঘিরে বিবদমান দুই গ্রুপের নেতা-কর্মীরা শীর্ষ পদ পেতে জোর চেষ্টা-তদবির চালিয়ে যাচ্ছেন।

আরও পড়ুন