বাঙালি সৌরভ কাজে লাগবে বিসিবির!

আপডেট: 09:11:51 14/10/2019



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : সৌরভ গাঙ্গুলি হতে যাচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) নতুন সভাপতি—এখন শুধু আনুষ্ঠানিক ঘোষণাটাই বাকি। ২৩ অক্টোবর বিসিসিআইর নির্বাচন। ওই নির্বাচনের পরই বিসিসিআইর সভাপতি হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করা হবে তার নাম। কিন্তু সৌরভকে শুভেচ্ছা জানানো শুরু হয়ে গেছে এরই মধ্যে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) অবশ্য ‘দাদা’কে শুভেচ্ছা জানাবে আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পরই ।
অন্য দেশের ক্রিকেট বোর্ডে কে প্রধান হলেন বা না হলেন সেটি নিয়ে বিসিবির ভাবার বেশি কিছু নেই। সব বোর্ডের সঙ্গেই বিসিবি চেষ্টা করে কূটনৈতিক সম্পর্ক ভালো রাখতে। তবে নামটা সৌরভ গাঙ্গুলি বলেই বিসিবির ভাবনা জানাটা জরুরি। একজন বাঙালি বসতে যাচ্ছেন উপমহাদেশ তথা পুরো ক্রিকেট বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী বোর্ডপ্রধানের চেয়ারে, তার কাছে স্বাভাবিকভাবেই একটু বাড়তি আশা থাকবে বিসিবির।
বিসিবির মিডিয়া কমিটির প্রধান জালাল ইউনুস আজ সাংবাদিকদের তাই বললেন, ‘বিসিসিআইয়ের সঙ্গে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সম্পর্ক ভালো। যারা বর্তমানে আছেন তাদের সঙ্গেও সম্পর্ক ভালো। আগে যারা ছিলেন তাদের সঙ্গেও ছিল। সৌরভ গাঙ্গুলি একজন বাঙালি, একজন সাবেক ক্রিকেটার। নিঃসন্দেহে বাড়তি একটা সুবিধা আমরা পাব। তার সঙ্গে কোনো একটা বিষয় নিয়ে আলাপ আলোচনা করতে আমরা আরেকটু স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করব। এখানে আমাদের অনেকের সঙ্গেই তার ব্যক্তিগত সম্পর্ক আছে। বাংলাদেশে অনেকবার খেলে গেছেন। সে তুলনামূলক কম বয়সী। আমাদের এখানে তার একটা আত্মার সম্পর্ক আছে। এগুলো নিঃসন্দেহে কাজে লাগবে।’
জাতীয় দল থেকে শুরু করে বয়সভিত্তিক ক্রিকেট—ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের অনেক দ্বিপক্ষীয় সিরিজ কিংবা আইসিসির টুর্নামেন্ট আয়োজন-সংক্রান্ত অনেক বিষয়ে হয়তো এখন হবু বিসিসিআই সভাপতির সঙ্গে স্বাচ্ছন্দ্যে আলোচনা করতে পারবে বিসিবি। আর জালাল যে বললেন, বাংলাদেশের অনেকের সঙ্গে তার ব্যক্তিগত সম্পর্ক আছে, এটির সবচেয়ে বড় উদাহরণ বিসিবির পরিচালক নাঈমুর রহমান। বাংলাদেশের অভিষেক টেস্টে নাঈমুর অধিনায়ক হিসেবে টস করতে গিয়েছিলেন সৌরভের সঙ্গে। দুই অধিনায়ক এখন জড়িয়ে ক্রিকেট প্রশাসনের সঙ্গে।
সূত্র : প্রথম আলো