বাস শ্রমিক নিহত, হামলা বিক্ষোভ অবরোধ

আপডেট: 09:27:04 25/09/2019



img

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি : সাতক্ষীরা শহরের বাঙালের মোড়ে নিজের গাড়ির যাত্রী নামাতে গিয়ে নিজেই চলন্ত ট্রাকের ধাক্কায় প্রাণ হারালেন বাসের হেলপার মেহেদি হাসান (২২)। তাকে যথাসময়ে চিকিৎসা দেওয়া হয়নি- এই অভিযোগ এনে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা এ সময় সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের ডাক্তার-কর্মচারীদের ওপর চড়াও হয়। পরে তারা সড়ক অবরোধ করে প্রায় এক ঘণ্টা যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়।
বুধবার সকালে শহরের বাঙালের মোড়ে এই দুর্ঘটনা ঘটে। পুলিশ ঘাতক ট্রাকটি জব্দ করেছে।
নিহত মেহেদি হাসান সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ধুলিহর গ্রামের কামরুল ইসলামের ছেলে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বাসটি কালিগঞ্জের দিক থেকে সাতক্ষীরা অভিমুখে আসছিল। শহরের বাঙালের মোড়ে যাত্রী নামাতে হেলপার মেহেদি হাসান নিচে নেমে আসেন। এ সময় বিপরীত থেকে আসা পাথরবোঝাই একটি ট্রাক (সাতক্ষীরা-শ-১১-০০২৩) তাকে ধাক্কা দিলে গুরুতর আহত হন তিনি। তাকে দ্রুত সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে কিছুক্ষণ পর মারা যান তিনি। শ্রমিকদের অভিযোগ, যথাসময়ে চিকিৎসা না দেওয়ায় রক্তক্ষরণে মারা যান মেহেদি।
অবহেলার প্রতিবাদে শ্রমিকরা প্রথমে হাসপাতালের ডাক্তার ও কর্মচারীদের ওপর চড়াও হয়। পরে তারা হাসপাতালের সামনে বিক্ষোভ দেখিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেয়। প্রায় এক ঘণ্টা পর পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।
সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান জানান, নিহত মেহেদির লাশ ময়নাতদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে রয়েছে।

আরও পড়ুন