বিএফইউজে সভাপতি রুহুল আমিন গাজী গ্রেফতার

আপডেট: 11:19:37 21/10/2020



img

সুবর্ণভূমি ডেস্ক : বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) একাংশের সভাপতি রুহুল আমিন গাজীকে রাষ্ট্রদ্রোহিতা এবং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের দুটি মামলায় গ্রেফতার করেছে হাতিরঝিল থানা পুলিশ।
বুধবার সন্ধ্যায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাতিরঝিল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবদুর রশিদ।
তবে রুহুল আমিন গাজীকে কখন গ্রেফতার করা হয়েছে সে বিষয়ে কোনো তথ্য জানাতে চাননি ওসি।
রুহুল আমিন গাজীর গ্রেফতারের বিষয়ে বিএফইউজের একাংশের মহাসচিব এম আবদুল্লাহ নিজের ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। সেখানে তিনি উল্লেখ করেন, ‘বিএফইউজের সভাপতি রুহুল আমিন গাজী ভাইকে সংগ্রাম অফিস থেকে হাতিরঝিল থানা পুলিশ নিয়ে গেছে।’
অপরদিকে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) একাংশের সভাপতি কাদের গনি চৌধুরীও এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।
সন্ধ্যায় পুলিশের তেজগাঁও বিভাগের উপকমিশনার মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ বলেন, গাজী রুহুল আমিনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ও রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগে মামলা হয়েছিল। ওই মামলায় আদালতের গ্রেফতারি পরোয়ানা বের হলে রুহুল আমিনকে গ্রেফতার করা হয়। একই মামলায় সংগ্রাম পত্রিকার সম্পাদক আবুল আসাদ গ্রেফতার হয়ে কারাগারে আছেন।
২০১৩ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে দণ্ডিত আবদুল কাদের মোল্লার ফাঁসির রায় হয়। ২০১৩ সালের ১২ ডিসেম্বর কাদের মোল্লার ফাঁসির রায় কার্যকর করা হয়। ২০১৯ সালের ১২ ডিসেম্বর দৈনিক সংগ্রাম পত্রিকার প্রথম পাতায় ‘শহীদ আবদুল কাদের মোল্লার ষষ্ঠ শাহাদৎবার্ষিকী আজ’ শিরোনামে প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়।
পরদিন ওই ঘটনায় আফজাল হোসেন নামে একজন মুক্তিযোদ্ধা বাদী হয়ে দণ্ডবিধির রাষ্ট্রদ্রোহের ধারা ও ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে রাজধানীর হাতিরঝিল থানায় মামলা করেন। মামলায় সংগ্রাম-এর সম্পাদক আবুল আসাদ ছাড়াও পত্রিকাটির প্রধান প্রতিবেদক রুহুল আমিন গাজী এবং বার্তা সম্পাদক সাদাত হোসেনের নাম উল্লেখ করা হয়। এজাহারে অজ্ঞাতনামা আরো ৬-৭ জনকে আসামি করা হয়। ওই দিন দৈনিক সংগ্রাম অফিসে হামলাও হয়। গ্রেফতার করা হয় পত্রিকাটির সম্পাদককে।
সূত্র : এনটিভি, প্রথম আলো

আরও পড়ুন