বেনাপোল বন্দর শ্রমিকনেতার ওপর হামলার চেষ্টা

আপডেট: 06:57:21 21/11/2020



img

স্টাফ রিপোর্টার, বেনাপোল (যশোর) : বেনাপোল স্থলবন্দরের হ্যান্ডলিং শ্রমিক ইউনিয়নের (৮৯১) সাবেক সভাপতি মো. মোস্তফার বাড়িতে হামলার চেষ্টা চালানো হয়েছে। সংগঠনের বর্তমান সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে শ্রমিকরা শনিবার (২১ নভেম্বর) সকালে এই ঘটনা ঘটায়। তবে স্থানীয়দের বাধার মুখে তারা পিছু হটে।
এ ঘটনায় ওই এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।
শ্রমিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি মো. মোস্তফা জানান, বন্দরের পাথর লোড-আনলোডের প্রায় সাড়ে চার কোটি টাকার বিল শ্রমিকদের পরিশোধ করা হয়নি। এ বিষয়ে এক মাস আগে শ্রম অধিদপ্তরের একটি অভিযোগ দেওয়া হয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে হ্যান্ডলিং শ্রমিক ইউনিয়নের বর্তমান সভাপতি ও সম্পাদকের নির্দেশে শ্রমিকদের একটি গ্রুপ তার বাড়িতে হামলা চালায়।
স্থানীয়রা জানান, কিছু শ্রমিক দলবদ্ধ হয়ে হাতুড়ি, হুক, লাঠি ও রামদা নিয়ে মোস্তফার বাড়িতে হামলা চালাতে আসে। কিন্তু গ্রামবাসীর বাধার মুখে তারা পিছু হটে।
তারা আরো বলেন, শ্রমিকরা বন্দরের অভ্যন্তরে কাজ করে। কথায় কথায় তারা রাজনৈতিক দলের ছত্রছায়ায় দলবদ্ধ হয়ে সশস্ত্র অবস্থায় গ্রামের মধ্যে সন্ত্রাসী কার্যক্রম করতে আসবে কেন? কেউ অন্যায় করলে তার জন্য আইন আছে। এভাবে প্রকাশ্যে জনগণের সামনে এ ধরনের কার্যক্রম খুবই জঘন্য।
এ ব্যাপারে বন্দর হ্যান্ডলিং শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি কলি মোল্লা বলেন, 'সাবেক সভাপতি মোস্তফা শ্রমিক সংগঠনের নেতাদের বিরুদ্ধে পাঁচ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ দিয়েছেন শ্রম অধিদপ্তরে। প্রকৃতপক্ষে  বেনাপোল স্থলবন্দর কর্তৃপক্ষ পাথর লোড-আনলোডের কোনো টাকা ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে দেয়নি। ঠিকাদার আমাদেরকেও টাকা দেয়নি। মিথ্যা অভিযোগ কেন দেওয়া হলো শ্রমিরা তা জানতে তার কাছে গিয়েছিল।' হামলাচেষ্টার অভিযোগ অস্বীকার করেন এই শ্রমিকনেতা।
এ বিষয়ে বেনাপোল পোর্ট থানার ওসি মামুন খান জানান, খবর পেয়ে পুলিশের একটি টিমকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়েছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে বলে জানান তিনি।

আরও পড়ুন