লোহাগড়া হাসপাতালের আরেক স্বাস্থ্যকর্মী আক্রান্ত

আপডেট: 05:21:40 25/04/2020



img

নড়াইল লোহাগড়া প্রতিনিধি : নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দন্ত্য বিভাগের একজন টেকনিশিয়ান করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।
এ নিয়ে ওই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকসহ মোট ছয়জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলেন বলে জানিয়েছেন নড়াইলের সিভিল সার্জন ডা. মো. আব্দুল মোমেন।
তিনি জানান, জেলায় মোট ১৬২ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য যশোর পাঠানো হয়েছিল। শনিবার (২৫ এপ্রিল) সকাল পর্যন্ত মোট ৫২টি নমুনার ফলাফল পাওয়া গেছে। এরমধ্যে ওই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চারজন চিকিৎসকসহ ছয়জনের নমুনা পজেটিভ এসেছে।
এ নিয়ে লোহাগড়া উপজেলায় মোট সাতজনের শরীরে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত হলো। এরমধ্যে প্রথম করোনা আক্রান্ত লোহাগড়া উপজেলার পারছাতরা গ্রামের সৈয়দ সুজনকে ইতিমধ্যে ‘করোনামুক্ত’ ঘোষণা করেছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ। সিভিল সার্জন তাকে চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে চলার অনুরোধ করেছেন।

এদিকে, লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা শরীফ সাহাবুর রহমান শনিবার দুপুরে জানান, গত ২২ এপ্রিল তার হাসপাতালের কিছু চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীর নমুনা সংগ্রহ করে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে পাঠানো হয়। এর মধ্যে একজনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে। তিনি বহির্বিভাগের রোগীদের ওষুধ সরবরাহ করতেন। তিনি বাসায় থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন।
এর আগে শনাক্ত হওয়া ডাক্তারসহ পাঁচজন হাসপাতালের আইসোলেশন ইউনিটে চিকিৎসা নিচ্ছেন।
উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, নড়াইলে করোনাভাইরাস পজেটিভ হওয়া সাতজনই লোহাগড়া উপজেলার। এর ছয়জন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী। একজন লোহাগড়া পৌর এলাকার পারছাতরা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি নারায়ণগঞ্জে একটি কোম্পানিতে চাকরি করতেন। সেখান থেকে বাড়িতে আসার পর তার শরীরে করোনা শনাক্ত হয়। আক্রান্তদের করোনার কোনো উপসর্গ ছিল না।

আরও পড়ুন